kalerkantho


বিশ্বনাথে পুলিশের মামলায় গ্রাম পুরুষশূন্য

বিশ্বনাথ (সিলেট) প্রতিনিধি   

২১ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



সিলেটের বিশ্বনাথে স্বামীর বিরুদ্ধে স্ত্রী-সন্তানকে ঘরে তালাবদ্ধ রেখে নির্যাতনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত রবিবার দুপুরে উপজেলার অলংকারী ইউনিয়নের মনোকুপা গ্রামের চকম আলীর বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় পুলিশ। এ সময় নির্যাতিতদের উদ্ধারের কাজে বাধা, পুলিশকে লাঞ্ছিত করার অভিযোগে ৩০ জন অজ্ঞাতপরিচয় ও ২৭ জনের নামে অ্যাসল্ট মামলা করে পুলিশ। গত রবিবার রাতে বিশ্বনাথ থানার এসআই সুলতান উদ্দিন বাদী হয়ে এ মামলা করেন। মামলার পর ওই রাতেই এক আসামিকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

এদিকে গত সোমবার সন্ধ্যায় অ্যাসল্ট মামলায় আসামি গ্রেপ্তার করতে মনোকুপা গ্রামের অভিযান চালায় পুলিশ। এ সময় গ্রেপ্তার এড়াতে গ্রামের পুরুষ সদস্যরা বাড়ি থেকে পালিয়ে যায়। ফলে পুরুষশূন্য হয়ে পড়ে পুরো গ্রাম।

স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের এক সদস্য ও বিশ্বনাথ থানার এসআই সুলতান উদ্দিনকে সঙ্গে নিয়ে ফারহানা বেগমকে উদ্ধার করতে যান তাঁর ভাই জয়নাল উদ্দিন। এ সময় আলী হোসেনের পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে ইউপি সদস্যের বাগিবতণ্ডা ও ধস্তাধস্তির ঘটনা ঘটে। এসআই সুলতান উদ্দিন বিষয়টি নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করলে তাঁকেও লাঞ্ছিত করা হয় বলে জানা গেছে।

বিশ্বনাথ থানার ওসি শামসুদ্দোহা বলেন, মামলার এক আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।



মন্তব্য