kalerkantho


মুন্সীগঞ্জে মিলল নিখোঁজ তরুণীর বস্তাবন্দি লাশ

নারায়ণগঞ্জে হোটেলকর্মীর মরদেহ

প্রিয় দেশ ডেস্ক   

১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগরে মিলেছে নিখোঁজ তরুণীর বস্তাবন্দি লাশ। নারায়ণগঞ্জ থেকে হোটেলকর্মীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বিস্তারিত আমাদের প্রতিনিধিদের পাঠানো খবরে : 

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি জানান, শ্রীনগর উপজেলায় নিখোঁজ হওয়ার চার দিন পর মিলেছে লিমু আক্তারের (১৮) বস্তাবন্দি লাশ। গতকাল শুক্রবার দুপুরে বাড়ৈখালী বাজারের চাঁন সুপারমার্কেটের নিচ থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। লাশের হাত-পা বাঁধা ছিল। ঘটনার সঙ্গে মার্কেটের কেউ জড়িত কি না তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। লিমুদের বাড়ি বাড়ৈখালী বাজারের পাশেই। তিনি আব্দুল মতিনের মেয়ে। স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, চার দিন আগে লিমু নিখোঁজ হন। কাপড় কেনার কথা বলে তিনি বাসা থেকে বের হয়েছিলেন। এ ব্যাপারে তাঁর বাবা থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন। লিমুর মা মারা যাওয়ার পর তাঁর বাবা দ্বিতীয় বিয়ে করেন। শ্রীনগর থানার ওসি ইউনুচ আলী জানান, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মুন্সীগঞ্জ মর্গে পাঠানো হয়েছে। 

অন্যদিকে নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি জানান, শহরের সেন্ট্রাল খেয়াঘাট এলাকায় শহীদের হোটেল থেকে কর্মী রাজু আহমেদের (১৮) লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল দুপুরে লাশটি উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় পুলিশ অপমৃত্যু মামলা করেছে। সদর মডেল থানার উপপরিদর্শক (্এসআই) জামাল হোসেন জানান, শহীদের দুটি খাবার হোটেলের মধ্যে একটি বন্ধ আছে। রাতে বন্ধ হোটেলে ঘুমাতেন রাজু। গত বৃহস্পতিবার রাতে তিনি কাজ শেষে হোটেলে ঘুমাতে যান। কিন্তু সকাল (গতকাল) ১১টা বেজে গেলে কাজে না যাওয়ায় অন্য কর্মচারী গিয়ে দেখে রাজুর লাশ পড়ে আছে। খবর পেয়ে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠায়। লাশের শরীরে কোনো আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। হোটেল মালিক শহীদের বরাত দিয়ে এসআই আরো জানান, রাজু মাত্র দুই দিন আগে কাজে যোগ দেন।



মন্তব্য