kalerkantho


সখীপুরে চোর সন্দেহে প্রতিবন্ধীকে মারধর

শরীরে সিগারেটের ছেঁকা

সখীপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি   

২৩ জুলাই, ২০১৮ ০০:০০



টাঙ্গাইলের সখীপুরে চোর সন্দেহে মানসিক প্রতিবন্ধী হাশেম নামের এক যুবককে পিটিয়ে আহত করার পাশাপাশি শরীরে সিগারেটের ছেঁকা দেওয়া হয়েছে। গত শনিবার আহত ওই যুবককে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। তিনি উপজেলার হতেয়া গ্রামের মৃত ইব্রাহীম মিয়ার ছেলে।

অহত যুবকের স্বজন ও স্থানীয় লোকজনের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, মানসিক প্রতিবন্ধী হাশেম মিয়া শুক্রবার সারা দিন পাশের বাজাইল গ্রামের বিভিন্ন এলাকায় ঘোরাঘুরি করেন। রাতে তিনি ওই গ্রামের রুবেল হোসেনের থাকার ঘরের বারান্দায় আশ্রয় নেন। রাত ১টার দিকে রুবেল হোসেন হাশেমকে বারান্দায় দেখে চোর সন্দেহে মারধর শুরু করে। পরে রুবেলের বাবা ময়েজ উদ্দিন ও প্রতিবেশী মতিয়ার রহমান এসে হাশেমের বুকে সিগারেটের আগুন দিয়ে ছেঁকা দেয় ও বারান্দার খুঁটির সঙ্গে রশি দিয়ে বেঁধে রাখে। খবর পেয়ে রাতেই হাশেমের এলাকার লোকজন গিয়ে তাঁকে উদ্ধার করে।

গতকাল রবিবার দুপুরে সখীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গিয়ে দেখা যায়, মানসিক প্রতিবন্ধী আবুল হাশেম তাঁর নানির সঙ্গে বসে আবোলতাবোল কথা বলছেন। তাঁর শরীরে সিগারেটের ছেঁকা দেওয়া হয়েছে। শরীরের বিভিন্ন জায়গায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

চিকিৎসক শাহিনুর আলম বলেন, ‘হাশেমের শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।’

 

 



মন্তব্য