kalerkantho


১ম কলাম

ক্লিনিক ঘেরাও

কেরানীগঞ্জ (ঢাকা) প্রতিনিধি   

২২ এপ্রিল, ২০১৮ ০০:০০



গর্ভের সন্তান মারা যাওয়ার পর গতকাল শনিবার কেরানীগঞ্জের খাড়াকান্দি মেডিক্যাল সেন্টার নামে একটি ক্লিনিক ঘেরাও করে স্থানীয়রা। প্রসূতি রেজিয়া বেগমের (৩০) খালাতো ভাই জহিরুল ইসলাম জানান, রেজিয়ার স্বামী শফিকুল ইসলাম সৌদিপ্রবাসী। প্রসববেদনা উঠলে শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে প্রসূতিকে খাড়াকান্দি মেডিক্যাল সেন্টারে নিয়ে যায় স্বজনরা। স্বাভাবিক প্রসব হওয়ার কথা ছিল। চার ঘণ্টা রাখার পর প্রসূতির অবস্থার মারাত্মক অবনতি ঘটে। এ সময় ক্লিনিকের লোকজন রেজিয়াকে অন্য কোথাও নেওয়ার কথা বলে। পরে তারা রেজিয়াকে মিটফোর্ড হাসপাতালে আনে। চিকিৎসকরা প্রসূতির এ অবস্থার জন্য স্বজনদের গালমন্দ করেন এবং গর্ভের সন্তান মারা গেছে বলে জানান। প্রসূতিকে বাঁচাতে হলে দ্রুত অস্ত্রোপচারের পরামর্শ দেন। রাতেই অস্ত্রোপচারে মৃত বাচ্চা বের করা হয়। এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ স্বজনরা শনিবার দুপুরে খাড়াকান্দি মেডিক্যাল সেন্টার ঘেরাও করে বিক্ষোভ করে। এ সময় ক্লিনিকের লোকজন তাদের ওপর হামলা চালায়। কলাতিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তাহের আলী বলেন, ‘ঘটনা শুনে ওই ক্লিনিকে গিয়ে দুই পক্ষকে শান্ত করা হয়েছে। রবিবার ইউনিয়ন পরিষদে দুই পক্ষকে ডাকা হয়েছে।’ খাড়াকান্দি মেডিক্যাল সেন্টারের পরিচালক সিরাজুল ইসলাম বলেন, ‘ওই রোগী প্রসব বেদনা নিয়ে আমাদের এখানে এসেছিলেন। তারা এক ঘণ্টা আমাদের এখানে রেখে রোগীকে অন্যত্র নিয়ে যায়। আমাদের এখানে কোনো চিকিৎসা করানো হয়নি। আমাদের ক্লিনিকের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা।’ কলাতিয়া পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক মো. শাহ আলম বলেন, ‘এ বিষয়ে কেউ কোনো অভিযোগ করেনি।’

 



মন্তব্য