kalerkantho


বিদ্যালয়ের দেয়াল ধসে প্রাণ গেল ছাত্রীর

পাবনায় আহত তিন শিশু হাসপাতালে ভর্তি

পাবনা প্রতিনিধি   

২২ এপ্রিল, ২০১৮ ০০:০০



পাবনায় বিদ্যালয়ের দেয়াল ধসে এক শিশুশিক্ষার্থীর মৃত্যু ও তিন শিক্ষার্থী গুরুতর আহত হয়েছে। আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গতকাল শনিবার সকালে পাবনা পৌর এলাকার শিবরামপুর মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে।

মৃত আফরিন নাহার (৯) বিদ্যালয়টির দ্বিতীয় শ্রেণির শিক্ষার্থী ও শিবরামপুর মহল্লার আইয়ুব আলীর মেয়ে। বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক এনামুল কবির সিদ্দিকী জানান, সংস্কারকাজের জন্য বিদ্যালয়ের দেয়ালঘেঁষে বালুসহ নির্মাণসামগ্রী রেখেছিলেন ঠিকাদার। গতকাল সকাল সাড়ে ৯টার দিকে দেয়ালের পাশ দিয়ে কয়েকজন শিক্ষার্থী হেঁটে যাওয়ার সময় দেয়ালটি তাদের ওপর ধসে পড়ে। এতে আফরিন নাহার, প্রথম শ্রেণির শিক্ষার্থী আফসানা খাতুন (৭) ও ইসমাইল (৬) এবং শিশু শ্রেণির শিক্ষার্থী আল আমিন (৫) গুরুতর আহত হয়। তাদের উদ্ধার করে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হওয়ায় আফরিন ও ইসমাইলকে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দুপুরে মৃত্যু হয় আফরিনের। পাবনা জেলা প্রশাসক জসিম উদ্দিন কালের কণ্ঠকে মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি ও জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আব্দুস সালাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন ও হাসপাতালে গিয়ে আহত শিক্ষার্থীদের চিকিৎসার খোঁজখবর নেন। জেলা প্রশাসক বলেন, ‘তাত্ক্ষণিকভাবে আহত প্রত্যেকের চিকিৎসার জন্য ১০ হাজার টাকা করে সহায়তা দিয়েছি। দেয়াল ধসের ঘটনা খতিয়ে দেখে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে। খুব দুঃখজনক এ ঘটনায় কারো গাফিলতি থাকলে তা বরদাশত করা হবে না।’ ঘটনার পর বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা বিদ্যালয়ের সামনে ঢাকা-পাবনা মহাসড়ক অবরোধের চেষ্টা করলে কিছু সময় যান চলাচল ব্যাহত হয়। পরে পুলিশ গিয়ে তাদের সরিয়ে দেয়। এদিকে হতাহতের ঘটনায় স্থানীয়দের মধ্যে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। গতকাল বিকেল ৪টায় এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত আফরিনের মরদেহ রাজশাহী থেকে পাবনায় এসে পৌঁছায়নি।


মন্তব্য