kalerkantho


আক্কেলপুর

প্রহরীদের বেঁধে ১৪ দোকানে ‘ডাকাতি’

জয়পুরহাট প্রতিনিধি   

২৩ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



জয়পুরহাটের আক্কেলপুরে নৈশপ্রহরীদের মারধর করে বেঁধে রেখে ১৪টি দোকানে ডাকাতির অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত রবিবার রাতে কাশিড়া বাজারে।

তবে পুলিশের দাবি, এটি চুরির ঘটনা। পুলিশ সুপার (এসপি) রশীদুল হাসান গতকাল সোমবার সকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

বাজারের ব্যবসায়ীরা জানায়, রবিবার রাত দেড়টার দিকে ২৫ থেকে ৩০ জন ডাকাত বিভিন্ন দলে ভাগ হয়ে চারটি ফ্লেক্সিলোডের, দুটি কীটনাশকের, পাঁচটি মুদি, একটি চা, একটি মেশিনারিজ ও একটি ফলের দোকানের তালা ভেঙে টাকাসহ ১০ লক্ষাধিক টাকার মালপত্র লুটে নেয়। তারা বাজারের চার নৈশপ্রহরী রশিদ, জিন্নাহ, বাসু ও সুমনকে মারধর করে দোকানের খুঁটির সঙ্গে বেঁধে রেখে দুই ঘণ্টা ধরে লুটপাট চালায়।

ইলেকট্রনিক ব্যবসায়ী শাহজাহান আলীর অভিযোগ, ডাকাতরা তাঁর দোকান থেকে ৮৫ হাজার টাকাসহ এক লাখ টাকার মালপত্র লুট করেছে।

মুদি ব্যবসায়ী কানাই চন্দ্র জানান, তাঁর দোকান থেকে এক লাখ ৭০ হাজার টাকা ও ৩৫ হাজার টাকার মালপত্র নিয়ে গেছে ডাকাতরা।

যেসব দোকানে ডাকাতি হয়েছে সেসব দোকানে বেচাকেনা ভালো হয় ও সব সময় অনেক ক্যাশ (টাকা) থাকে।

সেটা জেনেই বেছে বেছে দোকানগুলোতে লুটপাট চালিয়েছে ডাকাতরা। স্থানীয় কোনো মহল এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকতে পারে বলে তাঁদের সন্দেহ। পুলিশ একটু তত্পর হলেই জড়িতদের শনাক্ত করতে পারবে।

বাজারের বণিক সমিতির সভাপতি বিপ্লব সাখিদার জানান, আক্কেলপুর থানার ওসি সিরাজুল ইসলাম রাতেই বাজার পরিদর্শন করেছেন। তবে ওসি সিরাজুল বলেন, ‘ডাকাতি নয়, বাজারের কয়েকটি দোকানের তালা ভেঙে চোরের দল চুরি করে পালিয়ে গেছে। বিষয়টি গুরুত্বের সঙ্গে খতিয়ে দেখা হচ্ছে।’


মন্তব্য