kalerkantho


সাভারে সেতু ধসে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক, সাভার (ঢাকা)   

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ০০:০০



সাভারে পানির তোড়ে একটি সেতু ও পাশের ব্যস্ততম সড়কের কিছু অংশ ধসে নদীতে তলিয়ে গেছে। এ কারণে ঢাকা-আরিচা মহাসড়ক থেকে ভাকুর্তা ইউনিয়নের মোগড়াকান্দা হয়ে কলাতিয়াপাড়া দিয়ে রাজধানীর মোহাম্মদপুরের শহীদ বুদ্ধিজীবী সেতু পর্যন্ত ৩০টি গ্রামের হাজার হাজার মানুষের যোগাযোগের পথটি এখন বন্ধ হয়ে গেছে।

রাজধানী লাগোয়া সাভার উপজেলার ভাকুর্তা ইউনিয়নের সলমাসি-টোটালিয়াপাড়া এলাকায় তুরাগ নদে সম্প্রতি বিলীন হয়ে যাওয়া সেতু ও রাস্তাটি দিয়ে মালপত্র ও সবজি বোঝাই ট্রাক-পিকআপই বেশি চলাচল করে। এখন সেতুটি না থাকায় ভাকুর্তার ৩০টি গ্রামের হাজার হাজার মানুষ চরম বিপাকে পড়েছে। তারা রাজধানীতে সবজি, ইটসহ বিভিন্ন নির্মাণসামগ্রী সরবরাহে খুবই সমস্যা হচ্ছে। শুধু সেতুই নয়, গত দুই বছরে পানির তোড়ে নদীগর্ভে বিলীন হয়েছে ওই সেতুর আশপাশের অন্তত ৩০টি বসতবাড়ি, দোকানপাট ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান।

স্থানীয়দের দাবি, অপরিকল্পিতভাবে আবাসন প্রকল্প ও কয়েকটি ইটভাটা অবৈধভাবে নদী ভরাট করায় নদীর গতিপথ পরিবর্তন হয়ে এমন পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। এ ছাড়া ড্রেজার মেশিন বসিয়ে তুরাগ থেকে বালু তোলার পাশাপাশি সাম্প্রতিক বন্যার পানি বৃদ্ধি পাওয়ার কারণেও ভাকুর্তা ইউনিয়নের বিভিন্ন রাস্তাঘাট ভাঙনের মুখে পড়েছে।

শুক্রবার ঘটনাস্থলে গিয়ে কথা হয় এলাকার বৃদ্ধ মগরব আলীর সঙ্গে। তিনি বলেন, গত ১৩ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যা থেকে পরদিন পর্যন্ত সেতুটির ভাঙন চলে। এরপর থেকে ভাকুর্তা ইউনিয়নের সঙ্গে ঢাকার কেরানীগঞ্জ, নবাবগঞ্জ, দোহার ও বসিলা-মোহাম্মদপুর সড়ক যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়।

এ কারণে স্থানীয়রা চরম বিপাকে পড়েছে। নদীভাঙন থেকে রক্ষার দাবিতে স্থানীয়রা দখলদারদের বিরুদ্ধে ইতিমধ্যে বিক্ষোভ মিছিলও করেছে। এ সময় সমস্যা সমাধানে প্রশাসনকে দ্রুত উদ্যোগ নেওয়ার আহ্বান জানানো হয়।

এদিকে কী কারণে সেতুটি ধসে পড়েছে তা খতিয়ে দেখতে স্থানীয় সরকার ও প্রকৌশল অধিদপ্তরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন বলে জানা গেছে।

এদিকে একই ইউনিয়নের ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের তুরাগ বেইলি ব্রিজটিও ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। ব্রিজটি যেকোনো সময় নদীতে ভেঙে পড়ে বড় ধরনের দুর্ঘটনার আশঙ্কা করছে এলাকাবাসী। ব্রিজটির ওপর দিয়ে দিন-রাত শত শত যানবাহন যাতায়াত করে। ব্রিজটির লোহার পাটাতনও খুলে যাচ্ছে। এখানে একটি নতুন ব্রিজ নির্মাণের আহ্বান জানিয়েছে স্থানীয়রা।

অবিলম্বে তুরাগ নদের পাড়ের অবৈধ দখলদারদের উচ্ছেদ করার জন্য প্রশাসনের কাছে অনুরোধ করেছেন ভাকুর্তা ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন। তিনি জানান, দিন দিন তুরাগ নদের পাড় দখল হয়ে যাচ্ছে। নদীর পাড়ের বালু তোলার ফলে নদীর পানিপ্রবাহ বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। তিনি বলেন, নদীর চোরাই বালু দিয়ে ভরাট করে অনেকে আবাসন প্লট তৈরি করে বিক্রি করে কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে। এ ছাড়া তিনি এখানে একটি নতুন ব্রিজ নির্মাণের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে অনুরোধ করেন। সাভার উপজেলা প্রকৌশলী ধীরেন কুমার দেবনাথ জানান, ভেঙে যাওয়া সেতু ও সড়ক দ্রুত নির্মাণ করে রাজধানীর সঙ্গে সড়ক যোগাযোগ চালু করা হবে। তুরাগ নদ দখলদারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।


মন্তব্য