kalerkantho


মঠবাড়িয়া

কৃষক পরিবারের স্বপ্ন কয়লা

আঞ্চলিক প্রতিনিধি, পিরোজপুর   

২ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



কৃষক পরিবারের স্বপ্ন কয়লা

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার দাউদখালী ইউনিয়নের নিভৃত পল্লী হারজী নলবুনীয়া গ্রামের কৃষক রবিন মণ্ডলের বসতঘর গতকাল এভাবেই পুড়ে ছাই হয়। ছবি : কালের কণ্ঠ

আগামী ১০ মার্চ দরিদ্র কৃষক পরিবারটির একমাত্র মেয়ের বিয়ে। এই উপলক্ষে সাধ্যের সর্বোচ্চটা দিয়ে চলছে নানা আয়োজন।

কিন্তু এমনই সময়ে সর্বনাশা আগুন পরিবারটির সব স্বপ্ন কেড়ে নেয়। গতকাল বুধবার সকালে শর্টসার্কিট থেকে আগুন লেগে বসতঘরসহ বাড়ির সব মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার দাউদখালী ইউনিয়নের নিভৃত পল্লী হারজী নলবুনীয়া গ্রামের কৃষক রবিন মণ্ডল ওই সর্বনাশের শিকার হন। গতকাল সকালের ওই আগুনে তাঁর ভাই রমেশ মণ্ডলের বসতঘরও আংশিক পুড়ে যায়। বৈদ্যুতিক ত্রুটিপূর্ণ লাইনের শর্টসার্কিট থেকে এই আগুনের সূত্রপাত হয়। এতে প্রায় ছয়-সাত লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে ওই কৃষক দাবি করেছেন।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, কৃষক রবিন মণ্ডল গতকাল সকাল ৮টার দিকে স্ত্রীকে নিয়ে জমিতে কাজে যান। এ সময় তাঁর কলেজপড়ুয়া ছেলে বাড়িতে তালা দিয়ে কলেজে যায়। সাড়ে ৮টার দিকে বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিট থেকে বাড়িতে আগুন লাগে।

খবর পেয়ে মাঠ থেকে ছুটে আসেন কৃষক দম্পতি। কিন্তু ততক্ষণে পুরো বসতঘর মালামাল, খাদ্যশস্যসহ সব কিছু পুড়ে ছাই হয়ে যায়। প্রতিবেশীরা চেষ্টা চালিয়েও আগুন নেভাতে ব্যর্থ হয়। এ সময় তাঁর ভাই মণীন্দ্র মণ্ডলের বসতঘর আংশিক পুড়ে যায়। আগুনে কৃষক রবিন মণ্ডলের বসতঘর, তাঁর মেয়ের বিয়ের জন্য ঘরে রাখা ৪০ হাজার টাকা, ২০ মণ চাল, ১৫ মণ ধান, স্বর্ণালংকারসহ সব পুড়ে ছাই হয়ে যায়। পরিবারটি এখন খোলা আকাশের নিচে বিলাপ করছে।

ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক রবিন মণ্ডল জানান, তিনি সম্পূর্ণ নিঃস্ব হয়ে পড়েছেন। আগামী ২৬ ফাল্গুন তথা ১০ মার্চ তাঁর মেয়ের বিয়ের তারিখ নির্ধারিত হয়েছে। এখন তিনি কিভাবে কী করবেন ভেবে পাচ্ছেন না। স্থানীয় স্কুল শিক্ষক আশীষ কুমার হাওলাদার বলেন, বিষয়টি হৃদয়বিদারক। আগুনে কৃষক পরিবারটি নিঃস্ব হয়ে পড়েছে। সামনে মেয়ের বিয়ে। এমন দুর্যোগে গ্রামবাসীও ব্যথিত। মেয়ের বিয়ের জন্য গ্রামবাসী আর স্বজনদের পরিবারটির পাশে দাঁড়ানো উচিত।

স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের নারী সদস্য কবুতর বেগম বলেন, ওই কৃষকের সর্বস্ব পুড়ে ছাই হয়েছে। তাঁর মেয়ের বিয়ে সামনে রেখে আগুনে পরিবারটির স্বপ্ন পুড়ে ছাই হলো। বর্তমানে পরিবারটি চরম অসহায় হয়ে পড়েছে।


মন্তব্য