kalerkantho


জেএসসি পরীক্ষা

বামনায় তিন ভুয়া পরীক্ষার্থী ধরা

বরগুনা প্রতিনিধি   

৩ নভেম্বর, ২০১৫ ০০:০০



বরগুনার বামনার জেএসসি পরীক্ষা কেন্দ্র থেকে বুকাবুনীয়া মহমুদিয়া দাখিল মাদ্রাসার তিন ভুয়া জেএসসি পরীক্ষার্থীসহ মাদ্রাসা সুপারকে আটক ও জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। গতকাল সোমবার সকালে বামনা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট কাজী মাহবুবুর রশীদ উপজেলা সদরের ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে এ অভিযান পরিচালনা করেন।

আটক তিন ভুয়া পরীক্ষার্থী হলো অলিউল ইসলাম, মো. সাব্বির ও মো. হাসিবুর রহমান। তাদের প্রত্যেকের কাছ থেকে তিন হাজার টাকা করে জরিমানা আদায় করা হয়। এ ছাড়া ভুয়া পরীক্ষার্থীদের সহযোগিতা করার দায়ে মাদ্রাসা সুপার মো. নজরুল ইসলামকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

জানা গেছে, মাদ্রাসার এমপিও টিকিয়ে রাখতে তিন ভুয়া পরীক্ষার্থীকে দিয়ে পরীক্ষা দেওয়ার কাজে সহযোগিতা করেন মাদ্রাসা সুপার নজরুল ইসলাম। বুকাবুনীয়া মহমুদিয়া দাখিল মাদ্রাসা থেকে ২০ পরীক্ষার্থী ফরম পূরণ করে। এদের মধ্যে ১০ পরীক্ষার্থী এবার জেএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। ওই ১০ জনের মধ্যে দশম শ্রেণির তিন শিক্ষার্থীকে পরীক্ষার্থী সাজিয়ে ফরম পূরণ করে পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগ করে দেওয়া হয়।

এ ব্যাপারে মো. নজরুল ইসলাম বলেন, মাদ্রাসার এমপিও বাতিল হতে পারে-এমন আশঙ্কায় তিনজনকে পরীক্ষার্থী সাজানো হয়েছিল। এ বিষয়ে জেএসসি পরীক্ষা কেন্দ্রের সচিব মো. ইউনুস আলী জানান, সুপারসহ তিন পরীক্ষার্থীকে জরিমানা করা হয়েছে।

এ ছাড়া অভিযুক্ত সুপারের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থার সুপারিশ করা হয়েছে।

বামনা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী মাহবুবুর রশীদ জানান, অভিযুক্ত সুপারকে পরীক্ষা কেন্দ্র কমিটি থেকে বহিষ্কার ও তিন শিক্ষার্থীকে জরিমানা করা হয়েছে। এ ছাড়া সুপার নজরুল ইসলামের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে বরগুনার জেলা প্রশাসককে অবহিত করা হয়েছে।

এদিকে মেহেরপুর প্রতিনিধি জানান, মাদক সেবন করার অপরাধে মেহেরপুরে মামুনর রশিদ ও মামুন আলী নামের দুই মাদকসেবীর এক মাস করে জেল দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। গতকাল বিকেলে মেহেরপুরের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শুভ্রা দাস এ আদালত পরিচালনা করেন। দণ্ডিত মামুনুর রশিদের বাড়ি সদরের পিরোজপুর গ্রামে এবং মামুন আলীর বাড়ি পৌর এলাকার কালাচাঁদপুর গ্রামে।

 


মন্তব্য