kalerkantho

শুক্রবার । ৯ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


বিশেষ পরামর্শ

বাসায় বসে টেস্ট দাও, দুর্বলতা কাটাও

১৯ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



বাসায় বসে টেস্ট দাও, দুর্বলতা কাটাও

মূল্যায়ন পরীক্ষা : টেস্ট পেপার থেকে নমুনা প্রশ্ন দেখে বাসায় নিজে নিজে মূল্যায়ন পরীক্ষা বা মডেল টেস্ট দাও। কোথায় কোথায় দুর্বলতা আছে, টেস্টের সময় শেষ হওয়ার আগেই পুরো নম্বরের উত্তর দিতে পারছ কি না—দেখো।

দুর্বলতা থাকলে এখনই কাটিয়ে ওঠো। টেস্ট পেপারে যেসব টপিকের প্রশ্ন বেশি বেশি দেখবে, সেগুলোর ওপর বাড়তি নজর দেবে।

সময় বণ্টন : পরীক্ষায় কোন বিষয়ের ক্ষেত্রে সময় বণ্টন কেমন হবে, কোন প্রশ্নের জন্য কত মিনিট রাখবে, তা আগেই ঠিক করবে। বাসায় ঘড়ি ধরে মডেল টেস্ট না দিলে কিভাবে বুঝবে কোন ধরনের প্রশ্নে কতক্ষণ লাগছে? রিভিশন দেওয়ার জন্য অন্তত ৫-১০ মিনিট সময় রাখবে। কোনো প্রশ্নের উত্তর লিখতে গিয়ে অসম্পূর্ণ রাখা হয়েছে কি না, পরীক্ষার শেষদিকে তা-ও খেয়াল রাখবে। পরীক্ষার আগের দিনগুলোতে প্রস্তুতির ক্ষেত্রেও সময় বণ্টন জরুরি। পরীক্ষার আর কয়দিন বাকি, কোন পরীক্ষার আগে গ্যাপ আছে, কোন বিষয়ের সিলেবাস বড় বা দুর্বলতা আছে—এসব মাথায় রেখেই প্রস্তুতির ছক ঠিক করবে। পরীক্ষার আগে এমনভাবে সময় বণ্টন করবে, যাতে দিন ও রাতে মুড বুঝে বিষয়গুলো ধারাবাহিকভাবে দেখে নেওয়া যায়।

♦    সৃজনশীল ও বহু নির্বাচনীতে একই উত্তরপত্র ব্যবহার করতে হবে।

♦    পরীক্ষার্থীরা তাদের নিজ নিজ উত্তরপত্রের OMR ফরমে তার পরীক্ষার রোল নম্বর, রেজিস্ট্রেশন নম্বর, বিষয় কোড ইত্যাদি যথাযথভাবে লিখে বৃত্ত ভরাট করবে। কোনো অবস্থায়ই উত্তরপত্র ভাঁজ করা যাবে না।

♦  প্রতিটি বিষয়ের পরীক্ষার সময় পরীক্ষার্থীকে অবশ্যই স্বাক্ষরলিপিতে স্বাক্ষর করতে হবে।

♦  কেবল সাধারণ সায়েন্টিফিক ক্যালকুলেটর ব্যবহার করা যাবে।

♦  কোনো পরীক্ষার্থী পরীক্ষাকেন্দ্রে মোবাইল ফোন আনতে পারবে না।

♦  পরীক্ষার্থীর প্রবেশপত্র নিজ নিজ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে পরীক্ষা শুরুর অন্তত তিন দিন আগে সংগ্রহ করতে হবে।

♦    প্রত্যেক পরীক্ষার্থী কেবল নিবন্ধনপত্রে বর্ণিত বিষয়/বিষয়গুলোর পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবে।


মন্তব্য