kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ ডিসেম্বর ২০১৬। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ঈদ দিনে দিনে

ঈদের তিন কাল

আবার এলো ঈদ। ব্রিটিশ, পাকিস্তান ও বাংলাদেশ—তিন কালেরই ঈদের ছবি পাওয়া গেছে বাংলাদেশ ওল্ড ফটো আর্কাইভে। গ্রন্থনা করেছেন রিদওয়ান আক্রাম

৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



ঈদের তিন কাল

ঈদের জামাত, ঢাকা। জেমস বার্ক। ১৯৫৪

ব্রিটিশ আমল

ঈদের দিনে আহসান মঞ্জিলে পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে নবাব স্যার সলিমুল্লাহ। উনিশ শতকের শেষে অথবা বিশ শতকের গোড়ায় তোলা।

আলোকচিত্রী অজ্ঞাত

 

১৯৫৪

জেমস বার্ক

লাইফ ম্যাগাজিনের আলোকচিত্রী। ১৯৫৩ সালে এডমন্ড হিলারি ও তেনজিং নোরগের ছবিও তুলেছেন। হিমালয়ে ছবি তোলার কাজে গিয়েই ১৯৬৪ সালে মারা যান বার্ক। তখন তাঁর বয়স হয়েছিল মাত্র ৪৯। তাঁর তোলা বলিউডের মধুবালার কিছু ছবি সাম্প্রতিক সময়ে আবার আলোচনায় এসেছে।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

সত্তরের শুরু

নওয়াজেশ আহমদ

(১৯৩৫-২০০৯)

মানিকগঞ্জের এক জমিদার পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। ১৯৫৪ সালে তিনি ইস্ট বেঙ্গল অ্যাগ্রিকালচারাল ইনস্টিটিউট থেকে বিএজি ডিগ্রি লাভ করেন। ফুলব্রাইট স্কলারশিপ নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে যান এবং উইসকনসিন বিশ্ববিদ্যালয়ে উদ্ভিদ জিনতত্ত্ব বিষয়ে গবেষণা করেন। তিনি পিএইচডি ডিগ্রি লাভ করেন ১৯৬০ সালে। নিসর্গ ছিল তাঁর আলোকচিত্রের প্রধান বিষয়। আমেরিকায় তিনি পোর্ট্রেট অব আমেরিকা প্রদর্শনীতে অংশ নেন ১৯৫৮ সালে। তাঁর উল্লেখযোগ্য ফটো-অ্যালবাম হলো পোর্ট্রেট অব বাংলাদেশ (১৯৮২), বার্মা (১৯৯০), ওয়াইল্ড ফ্লাওয়ার্স অব বাংলাদেশ (১৯৯৮), বাংলার বনফুল (২০০১) ইত্যাদি।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

১৯৬৫

রজার গোয়েন

১৯৪১ সালে লন্ডনে জন্ম। তখন দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের কাল। তাঁদের বাড়ির আশপাশে তখন শরণার্থীরা ভিড় করেছিল। খাদ্যাভাব আর ধ্বংসস্তূপ দেখে বড় হয়েছেন। বেড়ানোর আগ্রহ তৈরি হয়েছে কৈশোরে। ছুটি-ছাঁটায় সস্তায় বেড়ানোর উপায় খুঁজতেন। চাইতেন মানুষের সঙ্গে মিশতে, নতুন নতুন সংস্কৃতি জানতে। স্পেন হয়ে মরক্কো গেছেন বিশ্ববিদ্যালয় শেষ করার আগেই। এসসিআই নামের একটি স্বেচ্ছাসেবী প্রতিষ্ঠানের হয়ে তিনি পূর্ব পাকিস্তানে আসেন ১৯৬৪ সালে। আমাদের মুক্তিযুদ্ধকালে তাঁর তোলা কিছু ছবি সম্প্রতি প্রদর্শিত হয়েছে ঢাকায়।

 

 

 

 

 

 

১৯৭৮

আনোয়ার হোসেন

জন্ম ঢাকায় ১৯৪৮ সালে। বুয়েট থেকে গ্র্যাজুয়েট হওয়ার পরে চলচ্চিত্র বিষয়ে পুনে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে উচ্চতর ডিগ্রি লাভ করেন। ১৯৬৭ সাল থেকে তিনি চিত্রধারণ শুরু করেন। সূর্য দীঘল বাড়ি, চাকাসহ ১৫টি ছবির তিনি চিত্রগ্রাহক। তিনি আলোকচিত্র বিষয়ে ৬০টি আন্তর্জাতিক পুরস্কার পেয়েছেন। ১৯৯৩ সাল থেকে তিনি ফ্রান্সের প্যারিসে বসবাস করছেন।

 

 

 

 


মন্তব্য