kalerkantho


মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষের শক্তিকে ক্ষমতায় দেখতে চান না বাংলার মানুষ

সাবেদ সাথী, নিউ ইয়র্ক প্রতিনিধি   

২৮ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০০:৫৫



মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষের শক্তিকে ক্ষমতায় দেখতে চান না বাংলার মানুষ

ছবি : কালের কণ্ঠ

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের আইন বিয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট শ ম রেজাউল করিম বলেছেন একটি অবাধ, সুষ্ঠু নির্বাচনের মাধ্যমে আবারো রাষ্ট্র ক্ষমতায় আসবে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ। কারণ নতুন প্রজন্মসহ বাংলার মানুষ মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষের শক্তিকে আর রাষ্ট্র ক্ষমতায় দেখতে চান না । গত সোমবার সন্ধ্যায় নিউ ইয়র্কের জ্যাকসন হাইটসের একটি মিলনায়তনে নিউ ইয়র্ক মহানগর আওয়ামী লীগ আয়োজিত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে বিএনপির পাঠানো লিগ্যাল নোটিশের প্রতিবাদে এক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি। 

অ্যাডভোকেট শ ম রেজাউল করিম আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে বিএনপির দেওয়া লিগ্যাল নোটিশের কোন ভিত্তি নেই। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বেগম জিয়া ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে যেসব দুর্নীতির কথা বলেছেন সেসব দুর্নীতির খবর আন্তর্জাতিক মিডিয়ায়ও এসেছে। ইতোমধ্যে বেগম জিয়ার ছোট ছেলে দুর্নীতির মামলায় সাজা হয়েছে। বেগম জিয়া ও তারেকের বিভিন্ন দুর্নীতির মামলাও রায়ের অপেক্ষায়। তিনি বলেন, জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট ও জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতির বিচারাধীন মামলার সাক্ষ্য প্রমাণে সাজা প্রাপ্তির সমূহ আশঙ্কার বিষয়টিকে ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার হীন উদ্দেশ্যে এ লিগ্যাল নোটিশ প্রদান করা হয়েছে।

মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি রফিকুর রহমান রফিকের সভাপতিত্বে এবং ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মো. শিমুল হাসান ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক দরুদ মিয়া রনেলের যৌথ পরিচালনায় এ প্রতিবাদ সমাবেশে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের অন্যতম উপদেষ্টা ড. মহসীন আলী, ডা. মাসুদুল হাসান ও ড. প্রদীপ রঞ্জণ কর, জাতীয় শ্রমিক লীগের কেন্দ্রীয় আন্তর্জাতিক বিষয়ক সমন্বয়কারী ও যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুর রহিম বাদশা, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক প্রকৌশলী মোহাম্মদ আলী সিদ্দিকী প্রমুখ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে রেজাউল করিম বর্তমান সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ডের বিভিন্ন চিত্র তুলে ধরে বলেন, বাংলাদেশ আজ অনেক এগিয়ে গেছে। বিশ্বে উন্নয়নের রোল মডেল হিসেবে খ্যাতি অর্জন করেছে। কিন্তু মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষ শক্তি দীর্ঘ সময় রাষ্ট্রী ক্ষমতায় থাকার কারণে মুক্তিযুদ্ধের চেতনার বাংলাদেশ আজো গড়ে তোলা সম্ভব হয়নি। স্বাধীনতাবিরোধীদের বিভিন্নভাবে পুনর্বাসন করে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা নস্যাৎ করা হয়।

তিনি বলেন, বাংলাদেশকে যেকোনো উপায়ে পূর্ব পাকিস্তানে পরিণত করার একটি স্বপ্ন নিয়ে বেগম খালেদা জিয়া এবং জামায়াতে ইসলামীর লোকেরা স্বক্রিয়ভাবে ভূমিকা রাখছে। তাদের সে স্বপ্ন কখনো বাস্তবায়ন হবে না। সমাবেশে অন্যান্য বক্তারা যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সভাপতি ড. সিদ্দিকুর রহমান ও যুগ্ম সম্পাদক নিজাম চৌধুরীর বিরুদ্ধে তীব্র সমালোচনা করে বক্তব্য রাখেন। যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের বর্তমান কমিটি বিলুপ্তিরও দাবিও জানানো হয় সভা থেকে।

সমাবেশটি শুরু হয় বাংলাদেশ ও আমেরিকার জাতীয় সংগীত পরিবেশনার মধ্য দিয়ে। এরপর বাংলাদেশের মহান মুক্তিযুদ্ধসহ দেশের জন্য আত্মত্যাগকারী শহীদদের স্মরণে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়। 
 



মন্তব্য