kalerkantho

মুক্তিযোদ্ধা ভবন থেকে মুক্তিযোদ্ধার মৃতদেহ উদ্ধার

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি   

১৮ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সুনামগঞ্জ জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সের বাথরুম থেকে একজন মুক্তিযোদ্ধার মৃতদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল রবিবার বিকেলে বাথরুমের দরজা ভেঙে মো. জলফে আলী (৮০) নামের এই মুক্তিযোদ্ধার মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। সন্ধ্যায় ময়নাতদন্তের জন্য তাঁর মৃতদেহ সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়।

জলফে আলীর বাড়ি সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার কোনাপাড়া গ্রামে।

সদর থানার ওসি মোহাম্মদ শহিদুল্লাহ সাংবাদিকদের বলেন, ‘মুক্তিযোদ্ধার মৃতদেহের সঙ্গে একটি কীটনাশকের ছোট বোতল ছিল। সুরতহাল রিপোর্টে মনে হয়েছে, কীটনাশক পানে তিনি আত্মহত্যা করেছেন। আমরা তাঁর মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালে পাঠিয়েছি।’

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, গতকাল সকালে মুক্তিযোদ্ধা জলফে আলী বাড়ি থেকে সুনামগঞ্জ শহরে আসেন। তিনি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মবার্ষিকীর আনন্দ শোভাযাত্রায় অংশ নেন। দুপুরে জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সের তৃতীয় তলায় এসে বাথরুমে প্রবেশ করেন। বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সের প্রহরী আতিকুর রহমান সোহাগ বাথরুমে এসে দেখেন ভেতর থেকে লাগানো। কোনো সাড়া শব্দ নেই। আশপাশের দোকানদারদের ডেকে তিনি জড়ো করে বাথরুমের দরজা ফুটো করে দেখেন ভেতরে একজন উপুড় হয়ে পড়ে আছেন। তাত্ক্ষণিকভাবে মুক্তিযোদ্ধাদের ও পুলিশকে খবর দেওয়া হয়।

এরপর সদর থানার ওসি এসে বাথরুমের দরজা ভেঙে জলফে আলীর মৃতদেহ উদ্ধার করেন। খবর পেয়ে সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আব্দুল আহাদ, পুলিশ সুপার বরকতুল্লাহ খানসহ প্রশাসনের কর্মকর্তারা উপস্থিত হন। তাঁদের সামনেই মুক্তিযোদ্ধা জলফে আলীর সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করে পুলিশ।

মন্তব্য