kalerkantho


বাংলাদেশ গরিব মানুষের বসবাসে বিশ্বে পঞ্চম

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২১ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০



অতিগরিব মানুষের সংখ্যা বেশি—এমন ১০ দেশের তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান বিশ্বে পঞ্চম। বিশ্বব্যাংকের ‘পোভার্টি অ্যান্ড শেয়ার প্রসপারিটি-২০১৮’ শীর্ষক প্রতিবেদনে এই চিত্র উঠে এসেছে।

গণমাধ্যমে প্রকাশিত ওই প্রতিবেদন অনুযায়ী, সবচেয়ে বেশি হতদরিদ্রের বাস পাশের দেশ ভারতে, ১৭ কোটি ৫৭ লাখ। এরপর আছে যথাক্রমে নাইজেরিয়া, কঙ্গো ও ইথিওপিয়া। তালিকায় ছয় থেকে ১০ নম্বরে থাকা বাকি পাঁচ দেশ হলো তানজানিয়া, মাদাগাস্কার, কেনিয়া, মোজাম্বিক ও ইন্দোনেশিয়া। বাংলাদেশে হতদরিদ্রের সংখ্যা দুই কোটি ৪১ লাখ।

ক্রয়ক্ষমতার সমতা বা পিপিপি অনুসারে, দৈনিক আয় ১ দশমিক ৯০ ডলারের কম—এমন ব্যক্তিদের হতদরিদ্র ধরা হয়। প্রতি পিপিপি ডলারের মান বাংলাদেশি মুদ্রায় ৩২ টাকার মতো। সেই হিসাবে, এ দেশের প্রায় দুই কোটি ৪১ লাখ মানুষের দৈনিক আয় ৬১ টাকার কম। নিম্ন মধ্যম আয়ের দেশ হিসেবে বাংলাদেশের অতিগরিব মানুষের একটি আলাদা হিসাবও দিয়েছে জাতিসংঘ। এ ধরনের দেশের মানুষকে দারিদ্র্যসীমার ওপরে উঠতে হলে প্রতিদিন অন্তত ৩ দশমিক ২ পিপিপি ডলার উপার্জন করতে হবে। বিশ্বব্যাংক বলছে, এই মানদণ্ডে বাংলাদেশে অতিগরিব মানুষের সংখ্যা আরো বেড়ে যাবে। সংখ্যাটি হবে আট কোটি ৬২ লাখ। মোট জনসংখ্যার হিসাবে ৫২.৯ শতাংশ।

উল্লেখ্য, গত সেপ্টেম্বরে মার্কিন গবেষণাপ্রতিষ্ঠান ‘ওয়েলথ-এক্স’ জানায়, অতিধনী বাড়ার হারে বাংলাদেশ বিশ্বে প্রথম। একই প্রতিষ্ঠানের গত বুধবারের আরেকটি প্রতিবেদনে উঠে আসে, ধনী বৃদ্ধির হারে বাংলাদেশ তৃতীয়। প্রতিষ্ঠানটির হিসাব অনুযায়ী, আগামী পাঁচ বছরে এ দেশে ধনী মানুষের সংখ্যা ১১.৪ শতাংশ হারে বাড়বে।



মন্তব্য