kalerkantho


নোয়াখালীতে আবারও ঘরে ঢুকে গৃহবধূ গণধর্ষণের অভিযোগ

নোয়াখালী প্রতিনিধি   

২০ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০



নোয়াখালীর সুবর্ণচরে গণধর্ষণের রেশ কাটতে না কাটতে এবার জেলার কবিরহাট উপজেলায় এক গৃহবধূকে গণধর্ষণ করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। পুলিশের কাছে ওই গৃহবধূ (২৯) অভিযোগ করেছেন, শুক্রবার রাতে তিন ব্যক্তি ঘরে ঢুকে অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে তাঁর তিন সন্তানকে জিম্মি করে তাঁকে ধর্ষণ করে। তাঁর বাড়ি উপজেলার ধানসিঁড়ি ইউনিয়নের নবগ্রামে।

পুলিশ ওই গৃহবধূর অভিযোগের ভিত্তিতে জাকের হোসেন (৩৫) নামের এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে। জাকেরের বাড়ি একই গ্রামে। সে স্থানীয় জিয়ানগরের মুদি দোকানদার।

কবিরহাট থানার ওসি মির্জা মো. হাছান জানান, গতকাল শনিবার দুপুর ১২টায় এক নারী থানায় এসে গণধর্ষণের অভিযোগটি করেন। গৃহবধূর অভিযোগ, শুক্রবার রাত ১টার দিকে একই এলাকার জাকের হোসেনসহ তিনজন ঘরে প্রবেশ করে তাঁর সন্তানদের জিম্মি করে তাঁকে ধর্ষণ করে। পরে তারা পালিয়ে যায়। তিনি আরো জানান, তাঁর স্বামী একটি মামলায় গ্রেপ্তার হয়ে এখন নোয়াখালী কারাগারে আটক রয়েছেন। বাড়িতে স্বামী না থাকার সুযোগে ওই তিনজন ঘরে ঢুকে তাঁকে ধর্ষণ করেছে। এর মধ্যে তিনি জাকের হোসেন নামের একজনকে চিনতে পেরেছেন।

ধর্ষণের অভিযোগ করা নারীর স্বামী কোন মামলায় কারাগারে তা জানাতে পারেননি। তবে ওসি জানিয়েছেন, ওই গৃহবধূর স্বামী একটি বিস্ফোরক মামলায় গত ২৩ ডিসেম্বর গ্রেপ্তার হয়ে কারাগারে আছেন। ওসি আরো জানান, ধর্ষণের অভিযোগের ঘটনায় থানায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে। ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য অভিযোগকারী নারীকে গতকাল বিকেলে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়।



মন্তব্য