kalerkantho


জঙ্গিবাদে অর্থায়ন

দুই এনজিওকর্মীর জবানবন্দি

আদালত প্রতিবেদক   

২১ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



জঙ্গি কর্মকাণ্ডে অর্থায়নের অভিযোগে দায়ের হওয়া মামলায় ‘স্মল কাইন্ডনেস বাংলাদেশ’ নামক বেসরকারি সাহায্য সংস্থার (এনজিও) দুই কর্মী স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। এ দুজনসহ একই সঙ্গে রিমান্ডে থাকা অন্য ছয়জনকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। ঢাকার আলাদা দুই মহানগর হাকিম আসামিদের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবিন্দ রেকর্ড করেন। আরেক হাকিম ছয়জনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

ঢাকা মহানগর হাকিম জিয়াউর রহমান আসামি সাফওয়ানুর রহমানের এবং হাকিম ইলিয়াছ মিয়া আসামি নজরুল ইসলামের জবানবন্দি রেকর্ড করেন। পরে তাঁদের কারগারে পাঠানোর আদেশ দেওয়া হয়।

হাকিম শাহিনূর রহমান ছয় আসামিকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। কারাগারে পাঠানো আসামিরা হলেন সুলতান মাহমুদ, মো. আবু তাহের, মো. ইলিয়াস মৃধা, মো. আশরাফুল আলম, হাসনাইন ও মো. কামরুল।

এর আগে রাজধানীর পল্লবী থানায় সন্ত্রাসবিরোধী আইনে দায়ের মামলায় দুই দফায় ৯ দিনের রিমান্ড শেষে গতকাল মঙ্গলবার আট আসামিকে আদালতে হাজির করা হয়।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের পরিদর্শক মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম আট আসামির মধ্যে ছয়জনকে কারাগারে আটক রাখার এবং দুজনের স্বীকারোক্তি রেকর্ড করার আবেদন করেন। গত ৭ নভেম্বর রাতে পলবী থানার ডিওএইচএস এলাকার ৯ নং রোডের ‘স্মল কাইন্ডনেস বাংলাদেশ’ এনজিওর অফিসে অভিযান চালিয়ে আসামিদের গ্রেপ্তার করা হয়।



মন্তব্য