kalerkantho


দুদক কর্মকর্তার মেয়ে বাসায় হামলায় আহত

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৯ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



রাজধানীর মতিঝিলে এজিবি কলোনিতে দুর্নীতি দমন কমিশনের কর্মকর্তার মেয়েকে কুপিয়ে আহত করেছে এক যুবক। আহত জয়া মণ্ডল (১৫) মতিঝিল আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজ থেকে এসএসসি পরীক্ষা দেবে। তার বাবার নাম গোপাল চন্দ্র মণ্ডল, মা মিনু রানী। দুজনই দুদকের কর্মকর্তা। এলাকাবাসী হামালকারীকে ধরে পুলিশে দিয়েছে।

ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের নিউরোসার্জারি বিভাগের চিকিৎসক ডা. ইরফান বলেন, ‘মেয়েটির শরীরের মাথা, পেট, পিঠ, হাত, ও ঠোঁটে কাটা জখম রয়েছে। তবে মাথার ভেতরে কোনো ইনজুরি পাওয়া যায়নি। আমাদের এখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে তাকে ক্যাজুয়ালটি বিভাগে পাঠানো হয়েছে।’

পুলিশ জানায়, জয়া মণ্ডল বাসায় একা ছিল। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেল ৩টার দিকে এক যুবক বাসায় ঢুকে মেয়েটিকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে আহত করে। জয়া মণ্ডলের চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন হামলাকারীকে আটক করে গণধোলাই দেয় এবং পরে পুলিশে সোপর্দ করে। জয়াকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

মতিঝিল থানার ওসি ওমর ফারুক বলেন, ‘এ ঘটনায় হাবিব নামে এক যুবককে আটক করা হয়েছে। হাবিব বলেছে, সে ওই বাড়িতে ঢোকেনি। তাকে রাস্তা থেকে লোকজন ধরে মারধর দিয়ে পুলিশের হাতে দিয়েছে।’ ওসি আরো বলেন, মেয়েটি অজ্ঞান অবস্থায় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে বলে তার সঙ্গে কথা বলতে পারেননি তাঁরা। কথা বলতে পারলে পুরো ঘটনা জানা যাবে। ওসি জানান, যুবকটি ছিঁচকে চুরির সঙ্গে জড়িত বলে সন্দেহ করা হচ্ছে।

ওসি বলেন, জয়া ও তার ভাই বাসায় ছিল। ঘটনার কিছু আগে জয়ার ভাই কোচিংয়ে চলে যায়। এর কিছুক্ষণের মধ্যেই ঘটনা ঘটে। পুলিশের সন্দেহ, জয়ার ভাই বাসা থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ওই যুবক বাসায় ঢুকে যায়। সম্ভবত চুরি করার সময় বাধা দিলে জয়াকে সে আঘাত করে।



মন্তব্য