kalerkantho


মালয়েশিয়ায় কর্মী পাঠাতে পারবে সব রিক্রুটিং এজেন্সি

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



জি টু জি প্লাস পদ্ধতিতে ১০টি এজেন্সির বদলে সব বৈধ রিক্রুটিং এজেন্সির মাধ্যমে বাংলাদেশ থেকে মালয়েশিয়ায় কর্মী পাঠানো যাবে। গতকাল মঙ্গলবার মালয়েশিয়ায় দুই দেশের মন্ত্রী ও প্রতিনিধিদলের মধ্যে বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত হয়। প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী নুরুল ইসলামের নেতৃত্বে বাংলাদেশের একটি প্রতিনিধিদল মালয়েশিয়া সফর করছে। সে দেশের প্রশাসনিক রাজধানী পুত্রজায়ায় জয়েন্ট ওয়ার্কিং গ্রুপের বৈঠকে বাংলাদেশের পক্ষে ১১ সদস্যের একটি প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেন মালয়েশিয়ায় নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার মো. শহিদুল ইসলাম। এরপর স্থানীয় সময় দুপুর আড়াইটায় প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী নুরুল ইসলামের নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল মালয়েশিয়ার মানবসম্পদমন্ত্রী কুলাসেগারানের সঙ্গে বৈঠক করে।

উল্লেখ্য, বর্তমানে বাংলাদেশে অনুমোদিত রিক্রুটিং এজেন্সির সংখ্যা এক হাজার ১৭৯টি। ২০১২ সালে সরকারিভাবে অর্থাৎ জি টু জি পদ্ধতিতে কর্মী পাঠাতে মালয়েশিয়ার সঙ্গে চুক্তি হয়। ২০১৬ সালে তা পরিমার্জন করে ১০টি বেসরকারি রিক্রুটিং এজেন্সিকে জি টু জি প্লাসের আওতায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়। এই ১০টি বেসরকারি রিক্রুটিং এজেন্সির বিরুদ্ধে ব্যাপক অভিযোগ ওঠায় এ পদ্ধতি বাতিল করেছে মালয়েশিয়া সরকার।



মন্তব্য