kalerkantho


ইভিএম ষড়যন্ত্রে সরকার জড়িত : মওদুদ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ বলেছেন, ‘আগামী জাতীয় নির্বাচনে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ব্যবহারের বিষয়ে নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্তের পেছনে সরকার জড়িত। নির্বাচনের মাত্র তিন মাস বাকি। এর আগে মেশিন দিয়ে ভোটের এ ধরনের ব্যবস্থার পেছনে বিরাট ষড়যন্ত্র রয়েছে বলে মনে করি এবং এই ষড়যন্ত্রের সঙ্গে সরকার ওতপ্রোতভাবে জড়িত।’

গতকাল শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে এক আলোচনাসভায় মওদুদ আহমদ এসব কথা বলেন। ‘খালেদা জিয়ার মুক্তি ও নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সরকার গঠনই জাতীয় সংকট সমাধানের একমাত্র পথ’ শীর্ষক এই আলোচনার আয়োজন করে বাংলাদেশ ইয়ুথ ফোরাম। আয়োজক সংগঠনের উপদেষ্টা মেহেদী হাসানের সভাপতিত্বে আলোচনাসভায় অন্যদের মধ্যে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আহমেদ আজম খান, নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের মুহাম্মদ রহমাতুল্লাহ, জাসাস সহসভাপতি শাহরিন ইসলাম শায়লা প্রমুখ বক্তব্য দেন।

মওদুদ আহমদ বলেন, ‘এই নির্বাচন কমিশনের ওপর বিএনপির কোনো আস্থা নেই। আর সেই কমিশনের অধীনে থাকবে ইভিএম নিয়ন্ত্রণের ভার। তাই নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারে ইসির সিদ্ধান্তও আমরা প্রত্যাখ্যান করছি।’

ইভিএম নিয়ে নির্বাচন কমিশনের তাড়াহুড়া নিয়ে প্রশ্ন তুলে সাবেক এই আইনমন্ত্রী বলেন, হঠাৎ করে এ রকম পদক্ষেপ মানুষের মনের মধ্যে প্রশ্নের সৃষ্টি করেছে। যে দেশের কেন্দ্রীয় ব্যাংকে জমা থাকা বৈদেশিক মুদ্রা হ্যাক করে পাচার করা যায়, সে দেশে মেশিন দিয়ে ভোট নেওয়ার ওপর মানুষের আস্থা থাকবে? এটা গ্রহণযোগ্য হতে পারে না।

ইভিএমের  নানা ত্রুটির কথা তুলে ধরে মওদুদ বলেন, এই ইভিএম পদ্ধতির ওপরে মানুষের আস্থা বিশ্বের কোনো দেশেই নেই। জার্মানিতে বন্ধ করে দিয়েছেন জার্মান সুপ্রিম কোর্ট। ইতালিতে নেই, তারা চেষ্টা করেছিল, প্রত্যাখ্যান করেছে। আয়ারল্যান্ডের মানুষ প্রত্যাখ্যান করেছে। এমনকি ভারতে ৭৩ শতাংশ মানুষ এই ইভিএম চালু করার বিরুদ্ধে মত দিয়েছে।’

‘ইভিএম ভোট চুরির জাদুর বাক্স’ : এদিকে নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে গতকাল আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে দলটির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবীর রিজভী আহমেদ ইভিএমকে ভোট চুরির ‘জাদুর বাক্স’ বলে অভিহিত করেন। তিনি বলেন, সত্যিকারের গণতান্ত্রিক ব্যবস্থায় সরকার পরিচালনায় জনগণের যে ম্যান্ডেট প্রয়োজন হয় সেটিতে বর্তমান সরকার বিশ্বাস করে না। তাই তারা অনুগত প্রধান নির্বাচন কমিশনারকে হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করে ইভিএম নামক জাদুর বাক্স আমদানি করেছে এবং এই বাক্স ব্যবহার করে আগামী সংসদ নির্বাচনে ধাপ্পাবাজির ভোটের বন্দোবস্ত করছে।



মন্তব্য