kalerkantho


বরিশাল ভূঞাপুরে দুই ছাত্রীকে ধর্ষণ

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৯ আগস্ট, ২০১৮ ০০:০০



বরিশাল ভূঞাপুরে দুই ছাত্রীকে ধর্ষণ

বরিশালের মুলাদী উপজেলায় তৃতীয় শ্রেণিতে পড়া এক ছাত্রী ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শিশুটিকে রক্তাক্ত অবস্থায় শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় আলমগীর সিকদার (৩০) নামের এক বখাটেকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গত শুক্রবার সন্ধ্যায় সফিপুর এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এর আগে শিশুটির বাবা বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। এদিকে, টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে এক মাদরাসা ছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয়েছে।

গাজীপুরের কালিয়াকৈরের বিষাইদ এলাকায় পঞ্চম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। স্থানীয় একটি প্রভাবশালী মহল বিষয়টি ধাপাচাপা দিতে চেষ্টা করছে বলেও অভিযোগ রয়েছে। এ ঘটনায় গতকাল ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে কালিয়াকৈর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

এদিকে গাইবান্ধায় তৃতীয় শ্রেণিতে পড়া এক ছাত্রকে বলাৎকারের প্রতিবাদে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে এলাকাবাসী। মানববন্ধনে মামলার আসামি বিনয় চন্দ্র দাসকে গ্রেপ্তার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানানো হয়। পঞ্চগড়ের প্রথম শ্রেণির এক শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগে আব্দুল আজিজ (৫০) নামের একজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গতকাল ঢাকার শ্যামবাজার এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। বিস্তারিত আমাদের আঞ্চলিক অফিস ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবরে—

গাজীপুরের ঘটনায় পুলিশ সূত্রে জানা যায়, কালিয়াকৈরের বিষাইদ এলাকার প্রবাসফেরত আব্দুল খালেক পঞ্চম শ্রেণিতে পড়া এক ছাত্রীকে বিভিন্ন সময় উত্ত্যক্ত করে আসছিল। গত বুধবার ওই বাড়িতে তাকে একা পেয়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। একপর্যায়ে স্কুলছাত্রীর চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এলে খালেক পালিয়ে যায়। এ সময় বিষয়টি কাউকে জানালে ওই স্কুলছাত্রীকে প্রাণে মেরে ফেলা হবে বলে হুমকি দেয় খালেক। ঘটনার পর থেকে বিষয়টি ধামাচাপা দিতে স্থানীয় একটি প্রভাবশালী মহল জোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। মীমাংসার জন্য তারা ওই স্কুলছাত্রীর পরিবারকে নানা ভয়ভীতি ও হুমকি দিচ্ছে।

বরিশালের ঘটনায় পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত বৃহস্পতিবার বিকেলে মুলাদী উপজেলায় তৃতীয় শ্রেণিতে পড়া ওই ছাত্রীকে নির্যাতন চালায় বখাটে আলমগীর সিকদার। পরে শিশুটিকে রক্তাক্ত অবস্থায় প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এবং পরে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

মুলাদী থানার ওসি জিয়াউল আহসান জানান, শুক্রবার সন্ধ্যায় অভিযান চালিয়ে আলমগীর সিকদারকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পাশাপাশি ছাত্রীটির বাবা বাদী হয়ে ধর্ষণের অভিযোগ এনে আলমগীরের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করেছেন।

গাইবান্ধার ঘটনায় পুলিশ সূত্রে জানা যায়, সদর উপজেলার ঝাউবাড়ী গ্রামে শিশুটি বাড়ির পাশের একটি মনোহারী দোকানে টিভি দেখতে যায়। এরপর একই এলাকার বিনয় চন্দ্র মোবাইলে গেম খেলার কথা বলে তাকে ফুঁসলিয়ে বাঁশঝাড়ে নিয়ে নির্যাতন করে। এ সময় শিশুটি চিৎকার শুরু করলে লোকজন ছুটে আসে। এ সময় বিনয় পালিয়ে যায়। এ ঘটনার পর শিশুটি গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে গাইবান্ধা জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

পঞ্চগড়ের ঘটনায় পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ধর্ষণের ঘটনার পরপরই আসামি আব্দুল আজিজ ঢাকায় শ্যামবাজার এলাকায় পালিয়ে যায়। শ্যামবাজার থানার পুলিশের সহযোগিতায় তাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। গত ৮ আগস্ট দুপুরে পঞ্চগড় সদর উপজেলার সাতমেরা ইউনিয়নের মাঝিপাড়া এলাকায় প্রথম শ্রেণির এক শিশুকে ধর্ষণ করে পাশের বাড়ির ভ্যানচালক আব্দুল আজিজ। শিশুটি স্থানীয় একটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রথম শ্রেণিতে পড়ে। ঘটনার দিন রাতে ধর্ষণের শিকার শিশুটির বাবা বাদী হয়ে আব্দুল আজিজকে আসামি করে পঞ্চগড় সদর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা করেন।

টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে এক মাদরাসাছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয়েছে। গত শুক্রবার রাতে উপজেলা পুখুরিয়া শিয়ালকোল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পুলিশ রাতেই হিটলার ও জাহিদ নামের দুই ধর্ষককে আটক করেছে। হিটলার উপজেলার চরপাড়া ভারই গ্রামের কিসমত আলীর ছেলে ও জাহিদ একই গ্রামের আসাদ ওরফে আছার ছেলে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে উভয়ই পুলিশের কাছে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে।

জানা যায়, ওই ছাত্রী শুক্রবার রাতে নিজ বাড়ি জিগাতলা থেকে মা-বাবার সঙ্গে অভিমান করে ভূঞাপুর বাসস্ট্যান্ডে চলে আসে। বাসস্ট্যান্ড থেকে এলেঙ্গা যাওয়ার উদ্দেশ্যে অটোরিকশায় উঠতে গেলে পরিবহন শ্রমিক হিটলার ও জাহিদ তার কাছে কোথায় যাবে জিজ্ঞেস করে তাকে এলেঙ্গা পৌঁছে দেওয়ার আশ্বাস দেয়। বিষয়টি ওই ছাত্রীর সন্দেহ হলে সে হেঁটেই এলেঙ্গার দিকে রওনা দেয়। এ সময় জাহিদ ও হিটলার তার পিছু নেয়। মেয়েটি পুখুরিয়া শিয়ালকোল কবির ইটভাটার কাছে পৌঁছালে তারা তাকে মুখ চেপে রাস্তার পাশে নির্জন স্থানে নিয়ে যায়। প্রথমে জাহিদ ও পরে হিটলার তাকে ধর্ষণ করে। এ ঘটনায় মেয়েটির বাবা হিটলার ও জাহিদকে আসামি করে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা করেন।

এ ব্যাপারে ভূঞাপুর থানার ওসি ও মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মো. আব্দুছ ছালাম মিয়া বলেন, ঘটনার পরপরই রাতেই দুই ধর্ষককে আটক করা হয়েছে। মেয়েটির মেডিক্যাল পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

 



মন্তব্য