kalerkantho


মা-মেয়ের লাশ ট্যাংকিতে

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

১৬ জুলাই, ২০১৮ ০০:০০



মনোয়ারা বেগম (৯৪)। মেয়ে শাহ মেহেরুন নেছা বেগম (৬৭)। চট্টগ্রাম নগরে নিজেদের বাড়িতেই থাকেন তাঁরা। অবিবাহিত মেহেরুন নেছা রুপালী ব্যাংকের প্রিন্সিপাল অফিসার পদে কর্মরত থাকার পর অবসর নিয়েছেন। মনোয়ারা বেগমের এক ছেলে বিদেশ থেকে মোবাইল ফোনে মা এবং বোনকে না পেয়ে স্বজনদের ফোন করেন। স্বজনরা এসে বাড়ির সামনের দরজা বন্ধ পেয়ে ডাকাডাকি করেও না পেয়ে পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ এসে দেখে কোথাও কেউ নেই। একপর্যায়ে মা-মেয়ের লাশ পানির ট্যাংকিতে দেখা যায়। ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা এসে উদ্ধার করেন লাশ।

নগরের খুলশী থানার আমবাগান এলাকার মেহের মঞ্জিল নামে ভবনের নিচতলায় এই ঘটনা ঘটে। শনিবার রাত থেকে সকালের মধ্যে কোনো এক সময় তাঁদের খুন করা হয়েছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। তাঁদের আদি বাড়ি চাঁদপুর জেলার মতলব থানায়। মরদেহ দুটি চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নগর পুলিশের উপকমিশনার (উত্তর) মোহাম্মদ আবদুল ওয়ারিশ কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘মেয়ের মাথার পেছনে আঘাতের চিহ্ন এবং মাকে গামছা পেঁচিয়ে হত্যার আলামত পাওয়া গেছে। এখন পর্যন্ত হত্যাকাণ্ডের কারণ জানা যায়নি।’



মন্তব্য