kalerkantho


ঘুনধুমে পাহাড় ধসে নিহত ৩

নিজস্ব প্রতিবেদক, বান্দরবান   

২২ মে, ২০১৮ ০০:০০



বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুনধুম এলাকায় পাহাড়ধসে এক নারীসহ তিনজন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে আরো দুজন। উপজেলা সদর থেকে প্রায় ৩০ কিলোমিটার দূরে ঘুনধুম ইউনিয়নের বরইতলীর মনজয়পাড়ায় গতকাল সোমবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে।

মনজয়পাড়ায় একটি মাছের খামারে পানি নিষ্কাশন নালা তৈরি করছিল এই পাঁচ শ্রমিক। দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে পাহাড়ধসের ঘটনা ঘটে।

গত বছর পাহাড়ধসে বান্দরবান জেলায় ১৩ জনের মৃত্যু হয়। তবে ভরা বর্ষা মৌসুম শুরু হওয়ার আগেই পাহাড়ধসে প্রাণহানির ঘটনা ঘটল।

নিহত তিনজন হলো আবু আহমেদ (৩০), মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন (২৫) ও সোনা মেহের বেগম (৩৫)।

নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এস এম সারোয়ার কামাল এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য ক্যানেরাও চাকমা জানান, নিহত তিনজন ঘুনধুম ইউনিয়নের বরইতলী এলাকার বাসিন্দা।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে মনজয়পাড়ার রূপায়ন বড়ুয়া নামের এক ব্যক্তির মাছের খামারে নালা তৈরির কাজ করছিল এক নারীসহ পাঁচ শ্রমিক। পানি নিষ্কাষণের জন্য পাহাড়ের ঢাল কেটে এই নালা তৈরির সময় পাশের পাহাড়ের একটি অংশ ধসে তাদের ওপর পড়ে। এতে পাঁচ শ্রমিক মাটির নিচে চাপা পড়ে। তিন বছর আগে দুটি পাহাড়ের মাঝে মাটির বাঁধ দিয়ে ওই মৎস্য খামার প্রতিষ্ঠা করেন রূপায়ন বড়ুয়া।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও স্থানীয় অন্য সূত্রগুলো থেকে তথ্য অনুযায়ী, পাহাড়ধসের পর ১৫ মিনিটের মধ্যে স্থানীয় লোকজন নূর মোহাম্মদ নামের এক শ্রমিককে জীবিত উদ্ধার করতে সক্ষম হয়। তাঁকে চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়। এরপর পুলিশ, বিজিবি ও স্থানীয় লোকজনকে নিয়ে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা উদ্ধার অভিযান শুরু করেন। সন্ধ্যা ৭টার দিকে মাটি খুঁড়ে নুরুল হাকিম নামের আরো এক শ্রমিককে উদ্ধার করা হয়। তাঁকে উখিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হয়। রাত ৮টার কিছু পর বাকি তিন শ্রমিকের লাশ উদ্ধার করা হয়।



মন্তব্য