kalerkantho


আসামের বাংলা ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি   

২০ মে, ২০১৮ ০০:০০



আসামের বাংলা ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা

আসামের শিলচরে ১৯৬১ সালের ১৯ মে বাংলা ভাষার আন্দোলনে পুলিশের গুলিতে নিহত ১১ শহীদের স্মরণে বাংলাদেশের ‘ভাষা আন্দোলন স্মৃতিরক্ষা পরিষদ’ গতকাল রাজধানীর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ফুলেল শ্রদ্ধা জানায়। ছবি : কালের কণ্ঠ

ভারতের আসামের শিলচরে ১৯৬১ সালের ১৯ মে বাংলা ভাষার আন্দোলনে পুলিশের গুলিতে নিহত ১১ শহীদকে স্মরণ করল বাংলাদেশের ‘ভাষা আন্দোলন স্মৃতিরক্ষা পরিষদ’। গতকাল শনিবার সকালে রাজধানীর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ফুলেল শ্রদ্ধা ও আলোচনাসভার মাধ্যমে আসামের এই ভাষাশহীদদের স্মরণ করা হয়।

আলোচনাসভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক। এ ছাড়া সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি গোলাম কুদ্দুছ, ভাষাসংগ্রামী সামছুল হুদা, আব্দুল করিম পাঠান, ভাষাসংগ্রামী আবদুল মতিনের স্ত্রী গুলবদন নেসা মনিকা, বাংলাভিশন টেলিভিশনের উপদেষ্টা আব্দুল হাই সিদ্দিকী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

অধ্যাপক আরেফিন সিদ্দিক বলেন, ‘ভাষা মানুষকে ঐক্যবদ্ধ করে। এটাই ভাষার শক্তি যা আমরা অন্তরে ধারণ করি। ভাষার জন্য জীবন দিয়েছে এমন ইতিহাস বাংলা ভাষা ছাড়া অন্য কোনো ভাষায় নেই। এ জন্য বাংলা ভাষার মানুুষ হিসেবে আমরা গর্ববোধ করি। একই সঙ্গে আসামের শিলচরে বাংলা ভাষার জন্য যারা জীবন দিয়েছে তাদের শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করি।’ কষ্টার্জিত এই ভাষা যাতে বিকৃত ও হারিয়ে না যায় সেদিকে সবাইকে লক্ষ রাখার আহ্বান জানান তিনি।

গোলাম কুদ্দুছ বলেন, ‘ভারতের আসামে বাংলা ভাষাভাষী মানুষ সংখ্যাগরিষ্ঠ থাকলেও রাজনৈতিক কারণে তারা আসাম থেকে বিতাড়িত হয়। ভাষার জন্য পুলিশের গুলিতে ১১ জন শহীদ হয়। একুশে ফেব্রুয়ারিতে বাংলাদেশের ভাষাশহীদদের যেভাবে সারা বিশ্বের মানুষ স্মরণ করে তেমনি ১৯ মে আসামের শহীদদের স্মরণ করা উচিত। তাহলে আমাদের বাংলা ভাষার প্রতি সত্যিকার অর্থে শ্রদ্ধা জানানো হবে।’

 


মন্তব্য