kalerkantho


সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ

রাজশাহীতে ভাইকে ক্রসফায়ারের হুমকি পুলিশ কর্মকর্তার!

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী   

১৯ মার্চ, ২০১৮ ০০:০০



রাজশাহীর পবায় জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে এক পুলিশ কর্মকর্তা বড় ভাইকে এবার ক্রসফায়ারে হত্যার হুমকি দিয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এর আগে তিনি ক্ষমতার অপব্যবহার করে পরিবারের সদস্যদের মামলা দিয়ে হয়রানি করেছিলেন।

গতকাল রবিবার দুপুরে রাজশাহী প্রেস ক্লাবে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলন করে এ অভিযোগ করেন কৃষিজীবী মতিউর রহমান। তিনি পবা উপজেলার নওহাটা বাঘাটা গ্রামের মৃত মুসলেম উদ্দিনের ছেলে। ছোট ভাই তছলেম উদ্দিন কিশোরগঞ্জের বাজিতপুর থানার ওসি (তদন্ত) হিসেবে কর্মরত।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে মতিউর রহমান দাবি করেন, গত বছর তাঁর এক দশমিক ৩৬ শতাংশ জমি দখলে নিয়ে সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করেন তছলেম। এ সময় বাধা দিতে গেলে মতিউর রহমানসহ তাঁর পরিবারের সদস্যদের মারধর করা হয়। এ ছাড়া ছয়জনের বিরুদ্ধে হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলা দেওয়া হয়। মারধরের ঘটনায় তছলেমের বিরুদ্ধে মামলা করা হলে তিনি আরো ক্ষিপ্ত হয়ে পুলিশ দিয়ে নানাভাবে হয়রানি শুরু করেন। সর্বশেষ গত ১০ মার্চ মতিউর রহমানের ছেলে আতাউর রহমানকে মিথ্যা মামলায় গ্রেপ্তার করে কারাগারে পাঠানো হয়। ক্ষমতার অপব্যবহার করে একইভাবে পরিবারের অন্য সদস্যদেরও হয়রানি করা হচ্ছে। এমনকি জমির দাবি ছেড়ে দেওয়া না হলে মতিউর রহমানকে ক্রসফায়ারে হত্যা করার হুমকি দিচ্ছেন তছলেম উদ্দিন। এ অবস্থায় চরম নিরাপত্তাহীনতার মধ্যে রয়েছে মতিউর রহমানের পরিবার।

সংবাদ সম্মেলন থেকে পুলিশ কর্মকর্তা তছলেম উদ্দিনের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, পুলিশ মহাপরির্দশকসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের দ্রুত হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়। একই সঙ্গে এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও বিচার দাবি করা হয়।

এ ব্যাপারে বক্তব্য জানতে অভিযুক্ত তছলেম উদ্দিনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি দাবি করেন, ‘ভাই মতিউর রহমান প্রতারণা করে অন্য ভাইবোনদের জমি লিখে নিয়েছেন। এ কারণে মা বাদী হয়ে মামলা করেছেন। এখন সে আমার বিরুদ্ধে উল্টাপাল্টা অভিযোগ করছে। যার কোনো ভিত্তি নাই। আমি হুমকি দিয়ে থাকলে তদন্ত করে আমার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হোক।’


মন্তব্য