kalerkantho


মাগুরায় আত্মহত্যার চেষ্টা ছাত্রলীগ নেতার

মাগুরা প্রতিনিধি   

২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



মাগুরা জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি রেজাউল ইসলাম (৩৫) গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন। অসুস্থ অবস্থায় তাঁকে হেলিকপ্টারযোগে ঢাকায় নেওয়া হয়েছে। একজন স্কুল শিক্ষিকার সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক প্রকাশ হওয়ার পর তিনি আত্মহত্যার চেষ্টা করেন বলে অনেকে জানায়। তবে স্ত্রীর দাবি, রেজাউল সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হয়ে এক মাস ধরে শয্যাশায়ী। মানসিক দুরবস্থায় তিনি এমন কাজ করেছেন।

স্ত্রী মমতাজ মমো জানান, মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় শারীরিক ও মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছেন রেজাউল। এরই মাঝে গত ২০ ফেব্রুয়ারি আদালতে এক স্কুল শিক্ষিকা মামলা করেছেন অনৈতিক সম্পর্কের দাবি নিয়ে। এ রকম পরিস্থিতিতে গতকাল বাড়ির একটি ঘরের সিলিংয়ে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন রেজাউল। ঘটনার পর প্রথমে তাঁকে মাগুরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। দুপুর দেড়টার দিকে উন্নত চিকিৎসার জন্য প্রাইভেট হেলিকপ্টারে তাঁকে ঢাকায় পাঠানো হয়েছে।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, এক তরুণী ব্যাংকে চাকরির জন্য তদবিরে রেজাউলের কাছে গেলে দুজনের সম্পর্ক তৈরি হয়। রেজাউল বিয়ের প্রলোভনে তাঁর সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক গড়ে তোলেন। কিন্তু বিয়ে করেন অন্যত্র। চাকরি ও বিয়ের কোনোটি না হওয়ায় বর্তমানে স্কুল শিক্ষিকা ওই তরুণী আদালতে মামলা দায়ের করেছেন। নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে দায়ের করা এ মামলায় ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে অনৈতিক সম্পর্ক, প্রতারণাসহ নানা অভিযোগ করা হয়েছে।

পরিবারের দাবি, মামলাটির অভিযোগ মিথ্যা। মাগুরা সদর উপজেলায় কর্মরত স্কুল শিক্ষিকা মোটা অঙ্কের টাকা হাতিয়ে নিতেই মামলা করেছেন। এ বিষয়ে আগে তিনি হুমকি দিয়েছিলেন।

মাগুরা সদর হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক সুশান্ত বিশ্বাস জানান, রেজাউলের শারীরিক অবস্থা শঙ্কামুক্ত। তবু পরিবারের আগ্রহে তাঁকে ঢাকায় পাঠানো হয়েছে।

অসুস্থ রেজাউল ইসলাম জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ছিলেন। গত বছর ৮ মে অনুষ্ঠিত জেলা সম্মেলনের মাধ্যমে নেতৃত্বে পরিবর্তন ঘটেছে।


মন্তব্য