kalerkantho


সাংবাদিকদের রাষ্ট্রপতি

গণতন্ত্র সংহত রাখতে আরো তৎপর হোন

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



দেশের গণতন্ত্র ও সাংবিধানিক ধারা সংহত রাখতে আরো তৎপর হতে সাংবাদিকদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। তিনি বলেন, স্বাধীন ও মুক্ত গণমাধ্যম গণতন্ত্রকে সুসংহত করতে পারে, মানবাধিকার ও আইনের শাসন প্রতিষ্ঠায় গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখতে পারে।

গতকাল রবিবার বিকেলে রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে বাংলাদেশ প্রেস কাউন্সিল পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে দেওয়া বক্তব্যে রাষ্ট্রপতি এসব কথা বলেন। বিশিষ্ট সাংবাদিক, কলামিস্ট ও লেখক আবদুল গাফ্ফার চৌধুরীসহ পাঁচ সাংবাদিক ও একটি প্রতিষ্ঠানকে এই পুরস্কার দেওয়া হয়।

রাষ্ট্রপতি বলেন, সংবাদপত্রের দায়িত্বশীল ও পেশাদারী ভূমিকা সাধারণ জনগণকে সঠিক তথ্য প্রদান করে সচেতনতা বৃদ্ধিতে সহায়তা করতে পারে। তিনি বলেন, অসত্য, উসকানিমূলক কিংবা হলুদ সাংবাদিকতা কখনোই জনগণ ও গণতন্ত্রের বন্ধু হতে পারে না।

সাংবাদিকদের উদ্দেশে আবদুল হামিদ বলেন, ‘আপনারা সমালোচনা করবেন। তবে তা যেন তথ্যভিত্তিক হয়। কোনোভাবেই যেন একপেশে না হয়। গঠনমূলক সমালোচনা সরকার পরিচালনা ও জাতি গঠনে সঠিক সিদ্ধান্ত গ্রহণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারে।’

অনুষ্ঠানে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম, বাংলাদেশ প্রেস কাউন্সিলের চেয়ারম্যান বিচারপতি মোহাম্মদ মমতাজ উদ্দিন আহমেদ, তথ্য মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির চেয়ারম্যান এ কে এম রহমতউল্লাহ এমপি, ভারপ্রাপ্ত তথ্যসচিব মো. নাসির উদ্দিন আহমেদ, সমকাল সম্পাদক গোলাম সারওয়ার এবং প্রেস কাউন্সিল সদস্য ও সাংবাদিক নেতা মনজুরুল আহসান বুলবুল বক্তব্য দেন।

পদকপ্রাপ্তরা হলেন কলামিস্ট আবদুল গফ্ফার চৌধুরী, (আজীবন সাফল্য পদক); সমকালের বিশেষ সংবাদদাতা রাজীব নূর, (গ্রামীণ সাংবাদিকতা); জনকণ্ঠের সিনিয়র রিপোর্টার রাজন ভট্টাচার্য (উন্নয়ন সাংবাদিকতা); বরিশালের সময়-এর চিফ রিপোর্টার মর্জিনা বেগম (নারী সাংবাদিকতা), স্টাফ ফটো সাংবাদিক আলামিন লিয়ন এবং দৈনিক সংবাদ (প্রতিষ্ঠান)। প্রত্যেক বিজয়ীকে ৫০ হাজার টাকা, একটি ক্রেস্ট ও একটি সার্টিফিকেট প্রদান করা হয়। সূত্র : বাসস।


মন্তব্য