kalerkantho


চরমোনাই পীরের দুদিনের তাফসির মাহফিল সমাপ্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৮ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০০:০০



ঢাকায় গতকাল বুধবার রাতে শেষ হয়েছে চরমোনাই পীরের দুই দিনব্যাপী তাফসির মাহফিল। রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে অনুষ্ঠিত মাহফিলে হাজারো ধর্মপ্রাণ মুসল্লি জমায়েত হন।

মাওলানা মুহাম্মদ ইমতিয়াজ আলমের সভাপতিত্বে মাহফিল পরিচালনায় ছিলেন মাওলানা এ বি এম জাকারিয়া ও মাওলানা আরিফুল ইসলাম। বিশেষ অতিথি ছিলেন দারুল উলুম দেওবন্দ মাদরাসার মুহাদ্দিস আল্লামা মনিরুল ইসলাম নকশাবন্দি, চরমোনাই কামিল মাদরাসার প্রিন্সিপাল অধ্যক্ষ মাওলানা সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল-মাদানী, অধ্যক্ষ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ, আল্লামা মুফতি দিলাওয়ার হোসাইন, অধ্যাপক হাফেজ মাওলানা এ টি এম হেমায়েত উদ্দিন, অধ্যক্ষ মাওলানা শেখ ফজলে বারী মাসউদ। সার্বিক তত্ত্বাবধানে ছিলেন আলহাজ মুহা. আব্দুর রহমান। উপস্থিত ছিলেন আলহাজ আলতাফ হোসেন, আলহাজ হারুন অর রশিদ ও আলহাজ আনোয়ার হোসেন, মাওলানা আব্দুর রাজ্জাক প্রমুখ।

তাফসির মাহফিলে চরমোনাই পীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম বলেন, ইসলাম শুধু ব্যক্তিজীবনে পালন করা কিছু আনুষ্ঠানিক ইবাদতের নাম নয়। মানুষের জৈবিক যত চাহিদা রয়েছে সব কিছুর দিকনির্দেশনা রয়েছে ইসলামে। অর্থনীতি, সমাজনীতি, রাজনীতিসহ সব বিষয়ে অনুসরণীয় আদর্শের নাম হলো ইসলাম। ইসলাম ধর্মের প্রবর্তক মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)-এর আদর্শের অভাবে সমাজের দুর্নীতি বাড়ছে। একটি দুর্নীতিমুক্ত সমাজ ছাড়া জনগণের কল্যাণ আসতে পারে না। চলমান শিক্ষানীতি ও শিক্ষা আইনে নাস্তিক্যবাদ সৃষ্টি করবে। তা সংশোধন করতে হবে। রাষ্ট্রীয়ভাবে ইসলাম না থাকায় দেশ বারবার দুর্নীতিতে চ্যাম্পিয়ন হচ্ছে। দুর্নীতিমুক্ত দেশ গড়তে হলে ইসলামকে ক্ষমতায় আনতে হবে।


মন্তব্য