kalerkantho


নবীনগরে আওয়ামী লীগ নেত্রী খুন

অন্ধকারে পুলিশ, এখনো গ্রেপ্তার হয়নি কেউ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি   

২৫ নভেম্বর, ২০১৭ ০০:০০



ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের মহিলাবিষয়ক সম্পাদক স্বপ্না আক্তার স্থানীয় ও দলীয় বিরোধে খুন হয়ে থাকতে পারেন বলে পরিবারের পক্ষ থেকে দাবি করা হলেও এ নিয়ে এখনো অন্ধকারে পুলিশ। ঠিক কী কারণে কিংবা কারা হত্যাকাণ্ডটি ঘটিয়ে থাকতে পারে, সে বিষয়ে গত তিন দিনেও কোনো সূত্র খুঁজে পায়নি পুলিশ।

গ্রেপ্তার করতে পারেনি কাউকে। স্বপ্না আক্তার যে সিএনজিচালিত অটোরিকশায় করে যাচ্ছিলেন, সেটিও শনাক্ত করা সম্ভব হয়নি।

হত্যাকাণ্ডের পর স্বপ্না আক্তারের সঙ্গে অনেকের বিরোধের বিষয় নিয়ে এলাকায় নানা কথা শোনা হচ্ছে। তবে প্রকাশ্যে এ বিষয়ে কেউ মুখ খুলতে চাইছে না। সন্দেহভাজন হিসেবে আটক ও মামলায় অভিযুক্ত সিএনজিচালিত অটোরিকশাচালক মো. জাহাঙ্গীরের কাছ থেকে গতকাল শুক্রবার পর্যন্ত উল্লেখযোগ্য কোনো তথ্য পায়নি পুলিশ। জাহাঙ্গীরের অটোরিকশায় করে প্রায়ই যাতায়াত করতেন স্বপ্না। গত বৃহস্পতিবার জাহাঙ্গীরকে আটক করে হেফাজতে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ। অভিযুক্ত অন্যরা এরই মধ্যে পালিয়েছে।

নবীনগর থানার ওসি মো. আসলাম সিকদার গতকাল সন্ধ্যায় জানান, হত্যাকারীদের শনাক্ত করতে কাজ করছে পুলিশ।

আরো জিজ্ঞাসাবাদের জন্য জাহাঙ্গীরকে এখনো আটক রাখা হয়েছে। নতুন করে আর কাউকে গ্রেপ্তার করা সম্ভব হয়নি।

ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সম্মেলন শেষে বাড়ি ফেরার পথে উপজেলার বাঙ্গরা এলাকায় গত বুধবার রাতে দুর্বৃত্তদের গুলিতে খুন হন স্বপ্না আক্তার।


মন্তব্য