kalerkantho


সমাবেশের অনুমতি মেলেনি, প্রতিবাদে বিএনপির বিক্ষোভ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৫ মে, ২০১৭ ০০:০০



সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সমাবেশের অনুমতি না পেয়ে বিএনপি সারা দেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি ঘোষণা করেছে। আজ বৃহস্পতিবার সব জেলা সদর ও মহানগরে এবং ঢাকার সব থানায় বিক্ষোভ সমাবেশ করা হবে। দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবীর রিজভী এ তথ্য জানিয়েছেন।

রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে গতকাল এক সংবাদ সম্মেলনে রুহুল কবীর রিজভী বলেন, ‘গণতন্ত্র নিজস্ব পথে চলছে না। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতার উচ্চ বলয় থেকে পতন হওয়ার আশঙ্কায় বিরোধী দলের সভা-সমাবেশ করার সব গণতান্ত্রিক অধিকারকে লোহার খাঁচায় বন্দি করে রেখেছে। গণতন্ত্রকে তারা পুলিশের ইচ্ছাধীন করেছে, গণতন্ত্রের পরিসর তাদের অনুমতি দ্বারা নির্ধারিত হয়। গণবিচ্ছিন্ন সরকার জনসমাবেশকে ভয় পায়। বিএনপিকে সমাবেশ করতে না দেওয়া সরকারের কুশাসনের পরিণতি। আমরা এ ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। এর প্রতিবাদে আমরা বৃহস্পতিবার সারা দেশে প্রতিবাদ সমাবেশের কর্মসূচি ঘোষণা করছি।’

চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা বিএনপির সহসভাপতি শেখ মহিউদ্দিনকে আরামবাগ বাস কাউন্টারের কাছ থেকে গোয়েন্দা পুলিশ তুলে নিয়ে গেছে অভিযোগ করে অবিলম্বের তাঁর সন্ধান দাবি করেন রিজভী।

কানাডার আদালতে পর পর দুটি মামলায় বিএনপিকে ‘সন্ত্রাসী দল’ আখ্যা দেওয়ার বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে রিজভী বলেন, একটি দেশের আদালত কিছু বলে দিলে তাতে সব কিছু প্রমাণ হয়ে যায় না। কানাডার আদালতের রায় যথাযথ আইনি প্রক্রিয়া মেনে হয়নি। আর একজন ব্যক্তির বক্তব্যের ভিত্তিতে চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে আসা যায় না। বরং বিভিন্ন আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা দুই-এক মাস পর পর দেশে গুম, খুন ও বিচারবহির্ভূত হত্যা হচ্ছে বলে জানাচ্ছে। সেগুলোকে বড় গ্রাহ্যের মধ্যে আনা উচিত।

সংবাদ সম্মেলনে দলের চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য আবুল খায়ের ভুঁইয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু, কেন্দ্রীয় নেতা এ বি এম মোশাররফ হোসেন, আবদুস সালাম আজাদ, আমিরুল ইসলাম খান আলিম, শাহিন শওকত প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।



মন্তব্য