kalerkantho

সুপ্রভাত ও জাবালে নূর

আন্দোলন দমাতেই সাময়িক নিষিদ্ধ সুপ্রভাত ও জাবালে নূর!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ মার্চ, ২০১৯ ১৪:১৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আন্দোলন দমাতেই সাময়িক নিষিদ্ধ সুপ্রভাত ও জাবালে নূর!

ঢাকা মহানগরীতে সুপ্রভাত ও জাবালে নূর পরিবহনের সব বাস ও মিনিবাসের চলাচল বন্ধ ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ)। গত বুধবার বিআরটিএ মিরপুর কার্যালয়ের উপপরিচালক (প্রকৌশল) শফিকুজ্জামান ভুঁইয়া এই আদেশ দেন। তবে আগামী রবিবারের পর এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত আসবে বলে বিআরটিএ সূত্রে জানা গেছে। এ দুটি বাস কম্পানির সব ধরনের  কাগজপত্র বিআরটিএ কর্তৃপক্ষের কাছে রবিবারের মধ্যে জমা দিতে বলা হয়েছে। তার পরই ব্যবস্থা!

ঢাকা মহানগরীর উত্তরার রানীগঞ্জ থেকে সদরঘাটে চলাচল করত সুপ্রভাত প্রাইভেট লিমিটেডের বাস ও মিনিবাস। জাবালে নূর পরিবহনের রুট ঢাকা মহানগরীর বসিলা থেকে আব্দুল্লাহপুর। বিআরটিএ সূত্রে জানা গেছে, এই দুই বাস কম্পানির রুট পারমিট বাতিল করা হয়েছে। পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত তাদের বাস নামতে পারবে না। কিন্তু এরই মধ্যে সুপ্রভাত রং পাল্টে সম্রাট নাম ধারণ করছে বলে সচিত্র প্রমাণ মিলেছে। 

গত বছরের ২৯ জুলাই জাবালে নূর পরিবহনের বাসের চাপায় রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কের কুর্মিটোলায় দুই শিক্ষার্থীর প্রাণহানি ঘটে। তারপর জাবালে নূরের একটি বাসের রুট পারমিট বাতিল করা হয়। তবে জাবালে নূর পরিবহনের বাসের বিরুদ্ধে যাত্রীদের ক্ষোভ দানা বাঁধায় তাদের বাস গত জুলাই থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত ব্যাপক হারে চলাচল করেনি। কিন্তু চলতি বছরের শুরু থেকেই তারা যথারীতি তাদের রুট দাপিয়ে বেড়াচ্ছে।

বিআরটিএর নজরদারির অভাবকেই এ জন্য দায়ী করা হচ্ছে। বাংলাদেশ যাত্রী কল্যাণ সমিতির মহাসচিব মোজাম্মেল হক চৌধুরী কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘আন্দোলন দমিয়ে রাখতেই আপাতত এই দুই কম্পানির বাস বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকারি কর্তৃপক্ষ। কিছুদিন পর হয়তো গোপন সমঝোতায় এ বাস কম্পানির বৈধতা দেওয়া হবে।’

মন্তব্য