kalerkantho


এসপিআইপিএল এর ডিরেক্টরকে স্পিকার

৯ বছরে দেশে বিদ্যুৎ উৎপাদন ১১৮০০ মেগাওয়াট বেড়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৭ জানুয়ারি, ২০১৮ ২১:০৩



৯ বছরে দেশে বিদ্যুৎ উৎপাদন ১১৮০০ মেগাওয়াট বেড়েছে

আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকারের আমলে গত ৯ বছরে দেশের বিদ্যুৎ উৎপাদন ১১ হাজার ৮০০ মেগাওয়াট বেড়েছে। সামিট পাওয়ার ইন্টারন্যাশনাল প্রাইভেট লিমিটেডের (এসপিআইপিএল) ইনডিপেনডেন্ট ডিরেক্টর আব্দুল্লাহ বিন তারমুগিকে এমনটাই জানিয়েছেন স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী। আজ বুধবার স্পিকারের সংসদ ভবনস্থ কার্যালয়ে আব্দুল্লাহ বিন তারমুগি-এর নেতৃত্বাধীন প্রতিনিধি দলের সঙ্গে সাক্ষাতকালে তিনি এ তথ্য জানান। 

এ সময় এসপিআইপিএল-এর চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আজিজ খান, ইন্ডিপেনডেন্ট ডিরেক্টর লিম হুই হুয়া, ট্যাং কিন ফ্যাই, ক্যাসপার ব্লাসি জোহানসেন, মোহাম্মদ লতিফ খান ও হেড অব এডমিন কর্নেল (অবঃ) জাওয়াদ-উল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

সাক্ষাতকালে স্পিকার বলেন, ২০০৮-০৯ সালে বাংলাদেশে বিদ্যুৎ খাত অনেক শোচনীয় অবস্থায় ছিল যখন বিদ্যুৎ উৎপাদন ছিল মাত্র ৩২০০ মেগাওয়াট। ইতিমধ্যে বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ ও কার্যকরী পদক্ষেপের কারণে বর্তমানে ১৫ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন হচ্ছে। চাহিদা বাড়ার সাথে সাথে সরকার বিদ্যুৎ উৎপাদন বৃদ্ধিতে যথেষ্ট মনযোগী। এক্ষেত্রে সামিট গ্রুপের অবদানও অনস্বীকার্য। 

তিনি আরো বলেন, বর্তমান সরকার দেশের মানুষের ভাগ্যোন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। এর ফলে আর্থ-সামাজিক ও অর্থনৈতিক বিভিন্ন সূচকে বাংলাদেশ দ্রুত উন্নতি লাভ করছে। বর্তমান সরকার সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনীর আওতায় বিভিন্ন কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ করে  অতি দারিদ্রের হার ২৩ শতাংশে কমিয়ে আনতে সক্ষম হয়েছে। 

এ সময় আব্দুল্লাহ বিন তারমুগি বলেন, বাংলাদেশের অবকাঠামোগত ও অর্থনৈতিক উন্নয়ন লক্ষ্যণীয়। বিদ্যুৎখাতে উন্নয়নের কারণে বাংলাদেশের প্রবৃদ্ধি সন্তোষজনক মাত্রায় স্থিতিশীল রয়েছে। 

তিনি আরো বলেন, বিদ্যুৎ, এলএনজি টার্মিনাল, ফাইবার অপটিক ও আর্ন্তজাতিক মানসম্মত সমুদ্র বন্দর স্থাপন এবং উন্নয়নে সামিট গ্রুপ কাজ করে যাচ্ছে। বিদ্যুৎ ও এলএনজি টার্মিনাল স্থাপনের কাঙ্খিত লক্ষ্য অর্জিত হলে বাংলাদেশ দ্রুত মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হবে।

এরই প্রেক্ষিতে ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেন, বাংলাদেশ ইতোমধ্যে সহস্রাব্দ উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা ছুঁয়ে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য ২০৩০ পূরণের পথে যাচ্ছে। ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ পরিপূর্ণভাবে ডিজিটাল ও মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হবে এবং ২০৪১ সালের একটি উন্নত সমৃদ্ধ দেশ উপহার দেওয়ার লক্ষ্যে সরকার কাজ করছে।



মন্তব্য