kalerkantho


'বিচার বিভাগের প্রতি শ্রদ্ধা নিশ্চিত করতে হবে'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১১ নভেম্বর, ২০১৭ ১৮:১১



'বিচার বিভাগের প্রতি শ্রদ্ধা নিশ্চিত করতে হবে'

ফাইল ছবি

ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহ্হাব মিঞা বলেছেন, আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করতে হলে বিচার বিভাগের প্রতি অপরিসীম শ্রদ্ধার পরিবেশ নিশ্চিত করতে হবে।

রাজধানীর অফিসার্স ক্লাবে আয়োজিত ২০১২ সালের ২২ এপ্রিল অর্ন্তভুক্তি পাওয়া নতুন আইনজীবীদের সনদ বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি আজ এ কথা বলেন।

এ সময় ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহ্হাব মিঞা বলেন, যে কোনো গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রব্যবস্থার জন্য আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা অপরিহার্য পূর্বশর্ত।

তিনি বলেন, সংবিধান অনুযায়ী সুপ্রিমকোর্টের উপর আইনের শাসন প্রতিষ্ঠার দায়িত্ব ন্যস্ত হয়েছে। একটি শক্তিশালী ও সহযোগিতামূলক বার নিঃসন্দেহে বেঞ্চের (কোর্ট) কার্যকর বন্ধু। একটি প্রচলিত প্রবাদ হলো-যেখানে আইনের শাসনের পতন হয়, সেখানেই স্বৈরাচারের উত্থান হয়।

নতুন আইনজীবীদের সনদ বিতরণ উপলক্ষে বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের উদ্যোগে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন কাউন্সিলের ভাইস চেয়ারম্যান সিনিয়র এডভোকেট আবদুল বাসেত মজুমদার।

অনুষ্ঠানে আরো বক্তৃতা করেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক, আপিল বিভাগের বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন, এটর্নি জেনারেল ও বার কাউন্সিলের চেয়ারম্যান মাহবুবে আলম, বার কাউন্সিলের এক্সিকিউটিভ কমিটির চেয়ারম্যান আবদুল মতিন খসরু এমপি, বার কাউন্সিলের ফাইন্যান্স কমিটির চেয়ারম্যান শ ম রেজাউল করিম প্রমুখ।

মো. আবদুল ওয়াহ্হাব মিঞা বলেন, বর্তমানে দেশের বিভিন্ন আদালতে ৩০ লাখের বেশি মামলা শুনানি ও নিষ্পত্তির অপেক্ষায় রয়েছে। এ বিশাল কর্মযজ্ঞের তুলনায় লোকবল খুবই কম।

দেশের বিভিন্ন আদালতে বিচারাধীন মামলার অনুপাতে বিচারকদের সংখ্যাও অনেক কম। তা সত্ত্বেও ন্যায়বিচার নিশ্চিতে অনিষ্পন্ন থাকা মামলাগুলো অগ্রাধিকার পাওয়া উচিত। কারণ, বিচারপ্রার্থীরা দীর্ঘদিন ধরে অপেক্ষা করছেন।

বাংলাদেশ এখন আন্তর্জাতিক সংস্থা কর্তৃক স্বীকৃত বিশ্ব অর্থনীতির রোড মডেল বলেও মন্তব্য করেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহ্হাব মিঞা।


মন্তব্য