kalerkantho


আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগই জয়লাভ করবে : ওবায়দুল কাদের

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ অক্টোবর, ২০১৭ ২০:৪৮



আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগই জয়লাভ করবে : ওবায়দুল কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে গড়ে ওঠা টিম ওয়ার্কের মাধ্যমেই আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগই জয়লাভ করবে।

তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা একটি চমৎকার টিম ওয়ার্ক গড়ে তুলেছি।

আর এ টিম ওয়ার্কের মাধ্যমেই দলকে আধুনিক ও সুসংগঠিত করে আগামী নির্বাচনে বিজয় অর্জন করতে পারব। ’

ওবায়দুল কাদের আজ বিকেলে রাজধানীর ধানমণ্ডিস্থ আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে বর্তমান কমিটির বর্ষপূর্তি উপলক্ষে আয়োজিত সম্পাদকমন্ডলীর বৈঠক শেষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন।

এ সময় আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ, অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক, আব্দুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, বি এম মোজাম্মেল হক, এ কে এম এনামুল হক শামীম, খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, প্রচার সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ, দপ্তর সম্পাদক ড. আবদুস সোবহান গোলাপ, সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক অ্যাডভোকেট আফজাল হোসেন, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক ফজিলাতুন্নেছা ইন্দিরা, কৃষি বিষয়ক সম্পাদক ফরিদুন্নাহার লাইলী, স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা. রোকেয়া সুলতানা ও শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক শামসুন্নাহার চাঁপা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, আওয়ামী লীগকে সাংগঠনিকভাবে শক্তিশালী করে গড়ে তুলতে আমরা বিভাগ ও জেলা পর্যায়ে প্রতিনিধি সভা, কর্মিসভা ও সমাবেশ করেছি। সব বিভাগে আমরা গিয়েছি। কোনো কোনো বিভাগে আমরা একাধিকবারও গিয়েছি।

তিনি বলেন, রোহিঙ্গা সংকট ও সাম্প্রতিক তিনটি বন্যায় দলের সাংগঠনিক কর্মকাণ্ডে প্রভাব ফেলেছে। কেননা, দলীয় নেতাদের এ বিষয়গুলো নিয়ে ব্যস্ত থাকতে হয়েছে।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের সদস্য সংগ্রহ অভিযান চলছে।

ইতিমধ্যে ৪২ লক্ষাধিক সদস্য তাদের সদস্য ফরম পূরণ ও নবায়ন করেছে।

গত এক বছরে বিভিন্ন পর্যায়ের নির্বাচনের ফলাফলের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে চমৎকার বিজয়ের মধ্য দিয়ে আমরা যাত্রা শুরু করেছি। তবে কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে আমাদের দলীয় প্রার্থী হেরে গেলে আমরা নৈতিকভাবে বিজয়ী হয়েছি।

এ বিষয়ে তিনি বলেন, জাতীয় সংসদের তিনটি আসনের উপনির্বাচনেই আমরা জয়লাভ করেছি। ছয়টি পৌরসভার মধ্যে পাঁচটিতে আওয়ামী লীগ এবং একটিতে স্বতন্ত্র প্রার্থী জয়লাভ করেছে।

ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের কথা উল্লেখ করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাদের বলেন, দেশের রাজনীতিতে ইউনিয়ন পরিষদ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ নির্বাচন। কারণ, এ নির্বাচনের মাধ্যমে দলের তৃণমূলের শক্তি প্রদর্শিত হয়। আর এ নির্বাচনে ৩৩৬টি ইউনিয়ন পরিষদের মধ্যে আওয়ামী লীগ ২৪৪টিতে বিজয়ী হয়েছে। বিএনপিসহ অন্যান্যরা ৯২টি ইউনিয়ন পরিষদে জয় পেয়েছে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, আমাদের দুর্বলতা নিয়ে আলাপ-আলোচনা করছি। তা কিভাবে কাটিয়ে ওঠা যায় সেভাবে আমরা কাজ করছি।  
দলীয় শৃঙ্খলা বিষয়ে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের যেকোনো পর্যায়ে শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ আসছে সেখানে দ্রুততার সঙ্গে সাংগঠনিক ও প্রশাসনিকভাবে ব্যবস্থা গ্রহণ করছি। সরকার দলীয় এমপি কারাগারে থাকা আর বিশ্বজিৎ হত্যার দায়ে ফাঁসির আদেশ তারই উদাহরণ।

ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের সঙ্গে বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার বৈঠক সফল হয়েছে বলে বিএনপি নেতাদের মন্তব্য সম্পর্কে জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাদের বলেন, ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ একজন অভিজ্ঞ রাজনীতিবিদ। তিনি আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সকল রাজনৈতিক দলের অংশগ্রহণে নির্বাচন অনুষ্ঠানের কথা বলেছেন।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও বার বার তা বলে আসছেন। কিন্তু বিএনপি কেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর কথায় খুশি হয়ে গেল, তা দেশের মানুষ বুঝতে পারছে না।

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, বিশ্বের অন্যান্য গণতান্ত্রিক দেশে যেভাবে জাতীয় সংসদ নির্বাচন হয় সেভাবেই আমাদের দেশেও নির্বাচন হবে। সুষমা স্বরাজ ভারতসহ অন্যান্য সংসদীয় গণতান্ত্রিক দেশে যেভাবে নির্বাচন হয় সে নির্বাচনের কথাই বলেছেন। অন্য কোনো ধরনের নির্বাচনের কথা বলেননি।

আওয়ামী লীগও একটি অবাধ, সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন চায় উল্লেখ করে বিএনপির উদ্দেশে কাদের বলেন, হঠাৎ করে নির্বাচন বয়কট করবেন না। জাতির স্বার্থে আগামী নির্বাচনে আপনারা অংশ নেবেন। সেটাই দেশের জনগণ আশা করে। আমরাও তাই প্রত্যাশা করি।


মন্তব্য