kalerkantho


'প্রধান বিচারপতিকে ছুটি নিতে বাধ্য করা হয়েছে'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৩ অক্টোবর, ২০১৭ ১৩:৫৯



'প্রধান বিচারপতিকে ছুটি নিতে বাধ্য করা হয়েছে'

প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহাকে বন্দুকের নল ধরে ছুটি নিতে বাধ্য করা হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাড. রুহুল কবির রিজভী আহমেদ। আজ শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে এক মানববন্ধনে প্রধান বক্তা হিসেবে এ মন্তব্য করেন তিনি।

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে বিভিন্ন মালায় গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির প্রতিবাদে এ মানববন্ধনের আয়োজন করেন বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী মহিলা দল।

আওয়ামীলীগ দেশের সর্বোচ্চ আদালতকে টার্গেট করে ধ্বংস করছে মন্তব্য করে প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশ্যে রিজভী আহমেদ বলেন, নিজের খবরদারী, নিজের কর্তৃত্বকে নিরঙ্কুশ করার জন্য সুপ্রিম কোর্টের মতো একটি আদালতকে তিনি তার প্রতিপক্ষ মনে করলেন। ষোড়শ সংশোধনীর রায় বাতিলের পরিপ্রেক্ষিতে, কয়েকটা অবজারভেশন, আওয়ামীলীগ এবং তাদের সরকার প্রধান মনে করলেন ওরে বাপরে, এটাতো সাংঘাতিক বিষয়।
 
বিএনপির এই মুখপাত্র আরো বলেন, তারা পার্লামেন্টে প্রধান বিচারপতিকে গালাগালি করেছেন। পৃথীবির কোথাও দেশের প্রধান বিচারপতিকে এতো নোংরা এবং এতো কুশ্রাব্য ভাষায় গালাগাল করতে পারে, সরকার এবং সরকারের মন্ত্রীরা এটার কোনো নজির নেই। সেই নজিরও আওয়ামী লীগ তৈরি করেছে।

তিনি বলেন, আমার দেখলাম প্রধান বিচারপতি কিছুদিন আগে ছুটি কাটিয়ে দেশে এসে উনার কর্মস্থলে যোগ দিয়েছেন, আবার উনি নাকি ছুটি নিয়েছেন। প্রধান বিচারপতি নিজেই নিজের ছুটি নিতে পারেন। ছুটি নিলেতো আগেই নিতে পারতেন।

গ্রীষ্মকালীন ছুটি নিয়ে তিনি যখন কানাডা, জাপান গেলেন তখনই নিতে পারতেন। রিজভী আহমেদ বলেন, এটাও কি জনগণের জানতে বাকি আছে, যে উনি ছুটি নিয়েছেন না তার স্বাক্ষর জালিয়াতি করে, জোর করে, হুমকি দিয়ে বন্দুকের নল ধরে ছুটির ব্যবস্থা করা হয়েছে।

 


মন্তব্য