kalerkantho


শোক দিবসে ৪ হাজার ৭৮৮ জন রোগীকে চিকিৎসাসেবা প্রদান

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৫ আগস্ট, ২০১৭ ২১:৩৬



শোক দিবসে ৪ হাজার ৭৮৮ জন রোগীকে চিকিৎসাসেবা প্রদান

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতি ও ম্যুরালে শ্রদ্ধা নিবেদন, বিনামূল্যে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসাসেবা প্রদান ও স্বেচ্ছায় রক্তদানসহ বিভিন্ন কর্মসূচির মাধ্যমে আজ মঙ্গলবার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) ৪২তম জাতীয় শোক দিবস পালিত হয়েছে।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪২তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে 'রোগীর সেবায় হই আরো যত্নবান'- এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে বিএসএমএমইউ’তে ৪ হাজার ৭৮৮ জন রোগীকে বিনামূল্যে চিকিৎসাসেবা প্রদান করা হয়।

দিবসটি উপলক্ষে সকাল ৮টায় ধানমণ্ডি ৩২ নম্বর রোডস্থ বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কামরুল হাসান খানের নেতৃত্বে শিক্ষক, ছাত্র-ছাত্রী, চিকিৎসক, কর্মকর্তা, নার্স ও কর্মচারীগণ শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করেন।  

এরপর সকাল ৯টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ম্যুরালে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়।  

পরে উপাচার্য হাসপাতালের বহির্বিভাগে বিনামূল্যে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসাসেবার উদ্বোধন করেন। সকাল ৯টা থেকে শুরু করে বেলা ২টা পর্যন্ত বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকগণ বিনামূল্যে রোগীদের চিকিৎসাসেবা প্রদান করেন। বিভিন্ন অনুষদের অধ্যাপক, সহযোগী অধ্যাপক, সহকারী অধ্যাপক, কনসালটেন্ট, মেডিক্যাল অফিসার, আবাসিক চিকিৎসক, নার্স ও মেডিক্যাল টেকনোলজিস্ট, কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ পাঁচ শতাধিক জনবল ১১৭টি কক্ষে এতে অংশ নেন।  

বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা নেয়া ৪ হাজার ৭৮৮ জন রোগীর মধ্যে মেডিসিন অনুষদে ২ হাজার ৬৬০ জন, সার্জারি অনুষদে ১ হাজার ৯৩৮ জন এবং ডেন্টাল অনুষদে ১৯০ জন রোগী রয়েছে।

কর্মসূচিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য (গবেষণা ও উন্নয়ন) অধ্যাপক ডা. মো. শহীদুল্লাহ সিকদার, উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ, উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ডা. এএসএম জাকারিয়া স্বপন, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ আলী আসগর মোড়ল প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

কর্মসূচির মধ্যে আরো ছিলো সকাল ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে বঙ্গবন্ধুর মূর‌্যালের সামনে ট্রান্সফিউশন মেডিসিন বিভাগের উদ্যোগে স্বেচ্ছায় রক্তদান এবং বেলা দেড়টায় বিএসএমএমইউ কেন্দ্রীয় মসজিদে বাদ জোহর কোরানখানি, দোয়া মাহফিল, তবারক বিতরণ ও অন্যান্য ধর্মাবলম্বীদের প্রার্থনা অনুষ্ঠান।


মন্তব্য