kalerkantho


এআইএ সম্মেলন

প্রধানমন্ত্রী আজ সৌদি আরব যাচ্ছেন

নিজস্ব প্রতিবেদক    

২০ মে, ২০১৭ ০২:৫৩



প্রধানমন্ত্রী আজ সৌদি আরব যাচ্ছেন

ফাইল ছবি

আরব ইসলামিক আমেরিকান (এআইএ) সম্মেলনে যোগ দিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চার দিনের সরকারি সফরে আজ শনিবার সন্ধ্যায় সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করবেন। আগামীকাল রবিবার রিয়াদে বাদশাহ্ আবদুল আজিজ আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প, আরব বিশ্ব ও অন্যান্য মুসলিম দেশের রাষ্ট্র ও সরকারপ্রধানরা সম্মেলনে যোগ দেবেন। সম্মেলনের মূল লক্ষ্য হলো উগ্রবাদ ও সন্ত্রাসবাদ মোকাবেলায় নতুন অংশীদারি প্রতিষ্ঠা, সহনশীলতা ও সহাবস্থানের মূল্যবোধের প্রসার এবং নিরাপত্তা ও স্থিতিশীলতা জোরদার করা।

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, সৌদি বাদশাহ এবং পবিত্র দুই মসজিদের খাদেম সালমান বিন আব্দুল আজিজ আল সাউদের আমন্ত্রণে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সম্মেলনে যোগ দিচ্ছেন। সৌদি আরবের সংস্কৃতি ও তথ্যমন্ত্রী ড. আওয়াদ বিন সালেহ আল আওয়াদ গত ১১ মে গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে বাদশাহ আবদুল আজিজের একটি আমন্ত্রণপত্র হস্তান্তর করেন।

জানা গেছে, প্রধানমন্ত্রী আগামীকাল এআইএ সম্মেলনে যোগ দেবেন। সৌদি নেতৃত্বাধীন সন্ত্রাসবিরোধী কেন্দ্র ‘গ্লোবাল সেন্টার ফর কমবেটিং এক্সট্রিমিস্ট থট’ এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দিবেন তিনি। শেখ হাসিনা সৌদি বাদশাহর দেওয়া এক ভোজসভায়ও যোগ দেবেন। প্রধানমন্ত্রী মহানবী হজরত মোহাম্মদ (সা.)-এর রওজা মোবারক জিয়ারত করতে আগামী রবিবার মদিনার উদ্দেশ্যে রিয়াদ ত্যাগ করবেন। তিনি একই দিন বিকেলে জেদ্দার উদ্দেশে মদিনা ত্যাগ করবেন। বাদশাহ্ আব্দুল আজিজ বিমানবন্দরে পৌঁছার পর তিনি হারাম শরিফে পবিত্র ওমরাহ্ পালন করতে মক্কায় যাবেন। শেখ হাসিনা আগামী মঙ্গলবার ঢাকার উদ্দেশে রওনা হবেন।

প্রধানমন্ত্রীকে কাতার সফরের আমন্ত্রণ
বার্তা সংস্থা বাসস জানায়, কাতারের প্রধানমন্ত্রী আবদুল্লাহ বিন নাসের বিন খলিফা আল সানি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে উপসাগরীয় ওই দেশ সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন। কাতারের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বিশেষ দূত ড. মুতলাক বিন মাজেদ আল কাহতানি বৃহস্পতিবার রাতে গণভবনে শেখ হাসিনার কাছে কাতারের প্রধানমন্ত্রীর এই আমন্ত্রণপত্র পৌঁছে দেন।

বৈঠক শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেসসচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের জানান, উপসাগরীয় দেশটি সফরে কাতারের প্রধানমন্ত্রীর আমন্ত্রণপত্র বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে। আমন্ত্রণ গ্রহণ করে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, দুই দেশের সুবিধাজনক সময়ে তিনি কাতার সফর করবেন।

প্রেসসচিব বলেন, আমন্ত্রণপত্রে কাতারের প্রধানমন্ত্রী মিয়ানমারের সঙ্গে রোহিঙ্গা শরণার্থী সমস্যা সমাধানে বাংলাদেশকে সহায়তা করতে তাঁর দেশের আগ্রহের কথা প্রকাশ করেছেন। বৈঠকে বিশেষ দূত রোহিঙ্গা শরণার্থী সংকটে উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেন, ‘এই সমস্যার সমাধান করে স্থায়ী শান্তির লক্ষ্যে আমাদের কাজ করা প্রয়োজন। ’

এর জবাবে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘মিয়ানমারের সঙ্গে বাংলাদেশের সুসম্পর্ক রয়েছে। আমরা তথ্য বিনিময় করছি এবং উচ্চপর্যায়ের সফর অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ’ প্রধানমন্ত্রী কাতারের দূতকে জানান, বাংলাদেশ ইতিমধ্যে মিয়ানমারকে তাদের নাগরিকদের ফিরিয়ে নেওয়ার আহ্বান জানিয়েছে।

শেখ হাসিনা কাতারের আমির তামিম বিন হামাদ আল সানি ও প্রধানমন্ত্রী আবদুল্লাহ বিন নাসেরের প্রতি শুভেচ্ছা জানান।

ড. মুতলাক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ ও দূরদর্শী নেতৃত্বে বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের ভূয়সী প্রশংসা করেন।

প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী ও সামরিকসচিব মেজর জেনারেল মিয়া মোহাম্মাদ জয়নুল আবেদীন বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।


মন্তব্য