kalerkantho


কমলগঞ্জে প্রধান বিচারপতি

'মুক্তিযোদ্ধাদের ভিভিআইপি মর্যাদা দেওয়া উচিত'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১০ মার্চ, ২০১৭ ২১:২১



'মুক্তিযোদ্ধাদের ভিভিআইপি মর্যাদা দেওয়া উচিত'

"মুক্তিযোদ্ধাদের ভিভিআইপি মর্যাদা দেওয়া উচিত। এক সাগর রক্তের বিনিময়ে, মুক্তিযোদ্ধাদের ত্যাগের বিনিময়ে এ দেশ স্বাধীন হয়েছে; আর আজ আমি সে দেশের প্রধান বিচারপতি পদে আসীন হয়েছি।

এ দেশ স্বাধীন না হলে আমার মতো একজন বাঙালি কোনো দিন দেশের প্রধান বিচারপতি হতে পারতাম না। "

আজ শুক্রবার সন্ধ্যায় মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলায় এক অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা।

প্রধান বিচারপতি বলেন, "স্বাধীনতার ৪৫ বছর পরও প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধা যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে, তা ভাবতে অবাক লাগে। এখনও প্রশ্ন জাগে কে প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধা, কে প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধা নয়। এত রক্তের বিনিময়ে এবং এত কম সময়ে বাংলাদেশের স্বাধীনতা অর্জন পৃথিবীর ইতিহাসে বিরল ঘটনা।

দেশে প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধার সঠিক তথ্য প্রয়োজন মন্তব্য করে প্রধান বিচারপতি বলেন, "অনেকে মুক্তিযুদ্ধে অংশ না নিয়ে এবং হত্যাযজ্ঞে অংশ নিয়ে ভুয়া মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে তালিকাভুক্ত হয়ে রাষ্ট্রীয় সুবিধা নিচ্ছেন। স্বাধীনতাবিরোধীরা কম সময়ের মধ্যেই দেশের রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় এসেছিল। স্বাধীনতার পর দেশে ইতিহাস বিকৃতি হয়েছে। এজন্য কি মুক্তিযোদ্ধারা যুদ্ধে অংশগ্রহণ করেছিল?

প্রধান বিচারপতি সন্ধ্যায় কমলগঞ্জের ভানুগাছ বাজারের ১০ নম্বর চত্বরে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর কর্তৃক নির্মিত উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবনের আনুষ্ঠানিক ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন।

পরে মুক্তিযোদ্ধাদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন তিনি।

কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাহমুদুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুল মুনিম তরফদার, মুক্তিযোদ্ধা আনন্দ মোহন সিনহা প্রমুখ। এ ছাড়া অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মৌলভীবাজার জেলা ও দায়রা জজ শফিকুল ইসলাম, জেলা প্রশাসক তোফায়েল ইসলাম, বিজিবির সেক্টর কমান্ডার কর্নেল আশরাফুল ইসলাম, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শাহজালাল, চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট একিউএম নাসির উদ্দিন প্রমুখ।

 


মন্তব্য