kalerkantho


বাংলাদেশ এখনও জঙ্গিবাদের থাবা থেকে মুক্ত নয় : আইজিপি

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৯ মার্চ, ২০১৭ ২২:৪২



বাংলাদেশ এখনও জঙ্গিবাদের থাবা থেকে মুক্ত নয় : আইজিপি

পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) একে এম শহীদুল হক বলেছেন, দেশের জঙ্গিরা ‘হোমগ্রোন’। কিন্তু জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসবাদ দমনে বিভিন্ন দেশের সমন্বয়ে কাজ করা এখন সময়ের দাবি।

এককভাবে জঙ্গিবাদ দমন সম্ভব নয়।  

আজ বৃহস্পতিবার পুলিশ সদর দপ্তরে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। ঢাকায় ১৪ দেশের পুলিশ প্রধান ও অন্য কর্মকর্তাদের অংশগ্রহণে তিন দিনব্যাপী আন্তর্জাতিক সম্মেলন আগামী ১২ মার্চ থেকে শুরু হবে। সে উপলক্ষে এই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

আন্তর্জাতিক সম্মেলনের প্রেক্ষাপট ব্যাখ্যা করে আইজিপি বলেন, বাংলাদেশ এখনও জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসের ভয়াল থাবা থেকে মুক্ত নয়। জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাস দমনে প্রতিবেশী দেশের আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গে সমন্বয়, সহযোগিতা ও অভিজ্ঞতা বিনিময় এখন অত্যন্ত প্রয়োজন। দক্ষিণ এশীয় অঞ্চলের মানুষের সংস্কৃতি, চিন্তাচেতনা, জীবনধারা ও অর্থনৈতিক কাঠামো প্রায় একই ধরনের। এ অঞ্চলের অপরাধের ধরন ও বৈশিষ্ট্যে অনেক মিল। তাই জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাস দমনে এ অঞ্চলের দেশগুলোর আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর মধ্যে সহযোগিতা ও সমন্বয়ের মাধ্যমে একটি উপায় উদ্ভাবন করা জরুরি।



এ সময় সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে পুলিশ প্রধান বলেন, পাকিস্তানকে সম্মেলনে আসার জন্য আমন্ত্রণ পাঠানো হলেও দেশটি সাড়া দেয়নি।

‘চিফস অফ পুলিশ কনফারেন্স অব সাউথ এশিয়া অ্যান্ড নেইবারিং কান্ট্রিজ অন রিজিওনাল কো–অপারেশন ইন কারবিং ভায়োলেন্ট এক্সট্রিমিজম অ্যান্ড ট্রান্স ন্যাশনাল ক্রাইম’ শিরোনামে আয়োজিত এই সংবাদ সম্মেলনে মোট ১৪টি অধিবেশন থাকছে। এতে উপস্থিত থাকছেন আফগানিস্তান, অস্ট্রেলিয়া, ভুটান, ব্রুনেই, চীন, ভারত, ইন্দোনেশিয়া, মালদ্বীপ, মালয়েশিয়া, মিয়ানমার, নেপাল, দক্ষিণ কোরিয়া, শ্রীলঙ্কা ও ভিয়েতনামের পুলিশ প্রধান ও পুলিশের শীর্ষ কর্মকর্তারা।  

সম্মেলনে পুলিশের আন্তর্জাতিক সংস্থা ইন্টারপোল, যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (এফবিআই), অস্ট্রেলিয়ার অস্ট্রেলিয়ান ফেডারেল পুলিশসহ (এএফপি) আসিয়ান পোল, অপরাধ তদন্ত নিয়ে গবেষণাকারী প্রতিষ্ঠান ইন্টারপোল গ্লোবাল কমপ্লেক্স ফর ইনোভেশন (আইজিসিআই), ইন্টারন্যাশনাল ক্রিমিনাল ইনভেস্টিগেশন ট্রেনিং অ্যাসিসটেন্স প্রোগ্রাম থেকেও কর্মকর্তারা আসছেন।

জানা গেছে, আন্তর্জাতিক এই সম্মেলনে জঙ্গিবাদ দমন, মানবপাচার, অর্থনৈতিক অপরাধ এবং সন্ত্রাসী অর্থায়ন, মাদকদ্রব্য পাচার রোধ, অবৈধ অস্ত্র চোরাচালান প্রতিরোধ, গোয়েন্দা তথ্য আদান-প্রদান, সাইবার অপরাধ নিয়ন্ত্রণ ইত্যাদি বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে। এর বাইরে পুলিশের মহাপরিদর্শকের সঙ্গে ইন্টারপোলের মহাসচিবসহ নয়টি দেশের পুলিশ প্রধান দ্বিপক্ষীয় আলোচনা করবেন।


মন্তব্য