kalerkantho


সংসদে প্রশ্নোত্তর পর্বে প্রধানমন্ত্রী

'সরকার স্বল্প আয়ের মানুষের জন্য ৪,৪১১টি ফ্ল্যাট নির্মাণ করছে'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১ মার্চ, ২০১৭ ১৯:১৩



'সরকার স্বল্প আয়ের মানুষের জন্য ৪,৪১১টি ফ্ল্যাট নির্মাণ করছে'

ফাইল ফটো

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, স্বল্প আয়ের মানুষের আবাসন সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে সরকার ৪৯৪টি আবাসন প্লট এবং ৪ হাজার ৪১১টি ফ্ল্যাট নির্মাণ কার্যক্রম গ্রহণ করেছে। তিনি আরো বলেন, দেশের ১৮টি জেলায় ৪৫টি প্রকল্পের মাধ্যমে এসব প্লট ও ফ্ল্যাট নির্মাণ কাজ বাস্তবায়িত হচ্ছে।

আজ বুধবার সংসদে প্রধানমন্ত্রী তার নির্ধারিত প্রশ্নোত্তর পর্বে সরকারি দলের সদস্য এনামুল হকের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, সরকার প্রজাতন্ত্রের কর্মচারিদের আবাসন সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে বর্তমানে বিদ্যমান আবাসন সুবিধা ৮ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ৪০ শতাংশে উন্নীত করেছে। দেশের প্রজাতন্ত্রের কর্মচারিদের আবাসন সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে জাতীয় গৃহায়ন কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে ঢাকার লালমাটিয়া ও মিরপুরে পরিকল্পিত ৯০২টি আবাসিক ফ্ল্যাট বরাদ্দ প্রাপ্তদের কাছে হন্তান্তর করা হয়েছে। ঢাকার লালমাটিয়ায় ১৫৩টি, মিরপুর ১৫ নম্বর সেকশনে ৫২০টি, ৯ নম্বর সেকশনে ১ হাজার ৪০টি এবং মোহাম্মদপুরে ৯০০টিসহ বিভিন্ন আয়তনের আবাসিক ফ্ল্যাটের বরাদ্দ প্রদান করা হয়েছে।

তিনি বলেন, গণপূর্ত অধিদপ্তর বর্তমানে ৪ হাজার ৭২৪টি ফ্ল্যাট নির্মাণ কার্যক্রম গ্রহণ করেছে। সকল শ্রেণির কর্মচারিদের জন্য এ সকল আবাসিক ফ্ল্যাট নির্মিত হচ্ছে এবং এর অংশ হিসেবে বাংলাদেশ জাতীয় সংসদ সচিবালয় কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য শেরেবাংলা নগরে বহুতল বিশিষ্ট ৪৪৮টি ফ্ল্যাট নির্মাণ করছে। এ প্রকল্পের আওতায় ৮টি ১৬ তলা ভবনে বিভিন্ন আয়তনের ৪৪৮টি ফ্ল্যাট নির্মাণ করা হচ্ছে। এ প্রকল্পের কাজ ৯৮ শতাংশ সমাপ্ত হয়েছে।

শেখ হাসিনা বলেন, সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতিদের জন্য সুউচ্চ আবাসিক ভবন নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় ১টি ২০ তলা ভবনে ৩ হাজার ৫০০ বর্গফুট আয়তনের ৭৬টি ফ্লাট নির্মাণের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

ঢাকার আজিমপুরে সরকারি কলোনীতে বহুতল বিশিষ্ট আবাসিক ভবন নির্মাণ। এ প্রকল্পের আওতায় ৬টি ২০তলা ভবনে ৪৫৬টি এবং ৪টি ২০তলা ভবনে ৫৩২টি ফ্ল্যাট নির্মাণ করা হবে।

তিনি বলেন, ঢাকার মিরপুরে ৬ নম্বর সেকশনে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য ১ হাজার ৬৪টি আবাসিক ফ্ল্যাট, ঢাকাস্থ মিরপুর পাইকপাড়ায় সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য ৬০৮টি আবাসিক ফ্ল্যাট, মিরপুর ৬ নম্বর সেকশনে গণপূর্ত অধিদপ্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য ২৮৮টি আবাসিক ফ্ল্যাট, ঢাকার বেইলী রোডে মন্ত্রীদের জন্য আবাসিক ভবন নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় ১টি ৬ তলা ভবনে ৫ হাজার ৬৩৩ বর্গফুট আয়তনের ১০টি ফ্ল্যাট নির্মিত হবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ইস্কাটনে সিনিয়র সচিব/সচিব/গ্রেড-১ কর্মকর্তাদের জন্য ৩টি ২০তলা ভবনে ১১৪টি ফ্ল্যাট, ঢাকার মালিবাগে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য ৪৫৬টি ফ্ল্যাট, নারায়ণগঞ্জস্থ আলীগঞ্জে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য ৮টি ১৫তলা ভবনে ৬৭২টি আবাসিক ফ্ল্যাট নির্মাণ করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, এছাড়া সকল স্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের আবাসিক সংকট নিরসনে সরকারি অব্যবহৃত জমিতে ও পরিত্যক্ত ভবনের স্থলে স্বল্পমেয়াদী ও দীর্ঘ মেয়াদী পরিকল্পনার অংশ হিসেবে আরো অধিকসংখ্যক ফ্ল্যাট নির্মাণের পরিকল্পনা রয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ঢাকা, চট্টগ্রাম ও খুলনায় সরকারি কর্মকর্তাদের জন্য ১ হাজার ২৪৮টি আবাসিক ফ্ল্যাট নির্মাণ প্রকল্প সরকারি অর্থায়নে অনুমোদনের জন্য প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।


মন্তব্য