kalerkantho


'তরুণ প্রজন্মই হবে আগামীর বাংলাদেশ গড়ার রূপকার'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১৯:৩৬



'তরুণ প্রজন্মই হবে আগামীর বাংলাদেশ গড়ার রূপকার'

শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, জ্ঞান-বিজ্ঞান চর্চার মাধ্যমে তরুণরাই বিশ্বকে পরিবর্তন করতে পারবে। তিনি আরো বলেন, তরুণ প্রজন্মই হবে আগামীর বাংলাদেশ গড়ার রূপকার। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ৬ষ্ঠ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, তরুণ প্রজন্ম পর্যাপ্ত জ্ঞান আহরণের মাধ্যমে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের বাংলাদেশ গড়ে তুলবে। আর এ জন্য শিক্ষা-দীক্ষা, চিন্তা- চেতনায় তাদেরকে আরও আধুনিক হতে হবে।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, উচ্চ শিক্ষার উদ্দেশ্য হবে নিজেকে ভালো মানুষ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করা। আর শিক্ষকরা যাঁরা উচ্চ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে দায়িত্বে নিয়োজিত আছেন, তাঁরা নতুন প্রজন্মকে এমন ভাবে গড়ে তুলবেন যাতে তারা আগামীর সুখী-সমৃদ্ধ বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দানে সক্ষম হয়। তাদেরকে যোগ্য নাগরিক হিসাবে গড়ে তুলতে হবে।

জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানিয়ে  নাহিদ বলেন, ইসলাম কখনোই জঙ্গিবাদ সমর্থন করে না। তাই ধর্মীয় শিক্ষার পাশাপাশি পারিবারিক অনুশাসনের উপর জোর দিতে হবে। লেখাপড়া করে আলোকিত মানুষ হতে হবে শিক্ষার্থীদের।

বর্তমান সরকার শিক্ষা বান্ধব সরকার উল্লেখ করে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, শিক্ষা ব্যবস্থার মান উন্নয়নে বিভিন্ন পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়নে সরকার অত্যন্ত আন্তরিক। পর্যায়ক্রমে এ বিশ্ববিদ্যালয়ের এক একটি ভবন আট থেকে দশ তলায় রূপান্তরিত হবে। অন্যান্য নির্মাণাধীন ভবনগুলোর কাজও দ্রুত শেষ হবে।

এ সময় তিনি বিশ্ববিদ্যালয়টির প্রসংশা করে আরো বলেন, একটি নবীন বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে এ প্রতিষ্ঠানটি বেশ ভালো ভাবেই এগিয়ে যাচ্ছে।

রেজিস্ট্রার মো. মনিরুল ইসলামের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন বরিশাল-২ আসনের সংসদ সদস্য এ্যাডভোকেট তালুকদার মোঃ ইউনুস, বরিশাল-৫ আসনের সংসদ সদস্য জেবুন্নেছা আফরোজ, বিশ্ববিদ্যায়ের ট্রেজারার অধ্যাপক ড. এ কে এম মাহবুব হাসান, বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের কমিশনার এস এম রুহুল আমিন, বরিশাল রেঞ্জের ডিআইজি শেখ মো: মারুফ হাসান, শিক্ষক সমিতির সভাপতি মো. আবদুল কাইয়ুম, অফিসার্স এসোসিয়েশনের পক্ষে ড. মো. হুমায়ুন কবির।

পরে বিশ্ববিদ্যালয় দিবস ২০১৭ উপলক্ষে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃক প্রকাশিত স্মরণীকা ‘কীর্তণখোলার’ মোড়ক উন্মোচন করেন প্রধান অতিথি।

এ ছাড়াও বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব অর্থায়নে ক্রয়কৃত একটি অত্যাধুনিক এ্যাম্বুলেন্স ফিতা কেটে উদ্বোধন করেন শিক্ষামন্ত্রী।


মন্তব্য