kalerkantho


রাজধানীতে পৃথক ঘটনায় পাঁচজন আহত, ঢামেকে ভর্তি

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০৮:২৮



রাজধানীতে পৃথক ঘটনায় পাঁচজন আহত, ঢামেকে ভর্তি

রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে পৃথক ঘটনায় পাঁচজন ‍আহত হয়েছেন। তাদের প্রত্যেককে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহতদের মধ্যে ছিনতাইকারী ছুরিকাঘাতে জখমও রয়েছেন। সোমবার (২০ ফেব্রুয়ারি) রাত ৯টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত এ বিচ্ছিন্ন ঘটনাগুলো ঘটে।

আহত পাঁচজন হলেন লালবাগের আবদুল বারেক (৪২), তার স্ত্রী রোবসানা বেগম (৩৭) ও তাদের সন্তান আবির হোসেন (১৭), মিরপুর দারুসসালামের শফিকুল ইসলাম(২৫) ও পল্লবীর মো. মঞ্জু (৩০)।

আহতদের মধ্যে বারেক অভিযোগ করেন, রাত ৯টার দিকে লালবাগের শহীদ নগর ২ নম্বর গলিতে তার টিনশেড বাড়িতে হামলা চালিয়ে লুটপাট করেছেন স্থানীয় সন্ত্রাসী ওয়াসিম মালেক ও মোস্তফাসহ তাদের ১৫-১৬ জন সহযোগী। এরপর হামলাকারীরা বাসায় ঢুকে ভাঙচুর করে আলমারিতে থাকা নগদ টাকা লুট করে নিয়ে যায়।

বারেক বলেন, আমি শহীদ নগরে স্থানীয় বাসিন্দা। সম্প্রতি দোতলা একটি বাড়ি নির্মাণের কাজ ধরেছি। ওই সন্ত্রাসীরা আমার কাছে এ জন্য চাঁদা দাবি করে। চা‍ঁদা না দেওয়ায় তারা আমার বাসায় হামলা চালায়।

আমার স্ত্রী ও সন্তানকে মারধর করে বাড়ি নির্মাণের নগদ টাকা লুট করে নিয়ে যায়।

অন্যদিকে শফিকুল জানান, দারুস সালামের লালকুঠি এলাকায় ডিশলাইনের তার কাটাকে কেন্দ্র করে স্থানীয় রুমি, আশারাফুল ও মুরাদসহ ৪-৫ জন যুবক তাকে কুপিয়ে আহত করেছেন। শফিকুলের মাথাসহ শরীরের দু-এক স্থানে ধারালো অস্ত্রের আঘাত আছে।

আর মিরপুর ১২ পল্লবী আধুনিক হাসপাতালের সামনে ছিনতাইকারীর ছুরিকাঘাতে গুরুতর আহত হন মঞ্জু। তাকে উদ্ধার করে ঢামেকে নিয়ে আসেন পথচারী জাকির হোসেন। জাকির জানান, মঞ্জু পল্লবী এলাকায় থাকেন। বাসায় ফেরার সময় দুজন ছিনতাইকারী মঞ্জুর বুকে ছুরিকাঘাত করে তার পকেটে থাকা কিছু টাকা ও মোবাইল নিয়ে যায়।

ঢামেক পুলিশ ক্যাম্পের এসআই বাচ্চু মিয়া জানান, লালবাগের ঘটনায় আহতরা গুরুতর আঘাত পাননি। বাকি দুজন ঢামেকে চিকিৎসাধীন এখনও।


মন্তব্য