kalerkantho


পল্টনে গুলিবিদ্ধের ঘটনায় মামলা, আটক ৮

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১২:১১



পল্টনে গুলিবিদ্ধের ঘটনায় মামলা, আটক ৮

পল্টনে মোশারফ ভূঁইয়া (২১) নামে এক আওয়ামী লীগকর্মী গুলিবিদ্ধের ঘটনায় সোমবার রাতে পল্টন মডেল থানায় মামলা হয়েছে। মামলা নম্বর ৩৮।

এ মামলায় মাসুদ রানা নামে একজনকে আসামি করা হয়েছে। এ ছাড়া ঘটনার দিন আটক কামরুজ্জামানের সংশ্লিষ্টতার প্রাথমিক প্রমাণ পাওয়ায় তাকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। সোমবার সন্ধ্যায় পুরানা পল্টন কালভার্ট রোডের ৩৭/২ নম্বর ভবনে নারায়ণগঞ্জ ১ (রূপগঞ্জ) আসনের আওয়ামী লীগের এমপি গাজী গোলাম দস্তগীরের অফিসে গুলির ঘটনাটি ঘটে। গুলিবিদ্ধ মোশারফ রূপগঞ্জ গাউছিয়া এলাকার বাসিন্দা ও রূপগঞ্জের আওয়ামী লীগকর্মী। মোশারফ বর্তমানে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

এ বিষয়ে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) উপকমিশনার (ডিসি-মিডিয়া) মো. মাসুদুর রহমান বলেন, সোমবার রাতে কামরুজ্জামানসহ আটজনকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়। পরে কামরুজ্জামানের সংশ্লিষ্টতার ব্যাপারে নিশ্চিত হওয়ায় তাকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে বাকিদের ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। কামরুজ্জামান সংসদ সদস্য গাজী দস্তগীরের এপিএস বলে জানা যায়। মামলার এজাহারভুক্ত আসামি মাসুদ রানাকেও গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এখনই বলা যাচ্ছে না কার পিস্তল থেকে গুলি করা হয়েছে। সেটা জানতে আরেকটু সময় লাগবে। তবে মামলার বাদী রুহুল আমিন ও আসামি মাসুদ রানার বিস্তারিত পরিচয় জানা যায়নি। মতিঝিল জোনের উপকমিশনার (ডিসি) আনোয়ার হোসেন বলেন, ঘটনাস্থলে একটি গুলিই করা হয়। দুই পক্ষের গোলাগুলি হয়নি। ওই অফিসে কামরুজ্জামানের কক্ষে পূর্বশত্রুতার জেরে একজনের সঙ্গে কথাকাটাকাটি হয়। এরই একপর্যায়ে মোশারফ গুলিবিদ্ধ হন।

 


মন্তব্য