kalerkantho

সোমবার । ৫ ডিসেম্বর ২০১৬। ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


সম্মেলন শুরুর আগেই রাজধানীজুড়ে ভোগান্তি

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ অক্টোবর, ২০১৬ ১০:২৪



সম্মেলন শুরুর আগেই রাজধানীজুড়ে ভোগান্তি

মতিঝিল থেকে মোহাম্মদপুরে যাওয়ার চেষ্টা করছিলেন এপিসিএল বাসের চালক রফিক। সময় তখন শনিবার সকাল সাড়ে ৮টা।

গুলিস্তান মোড়ে আসার পর ট্রাফিক পুলিশ তাকে রমনার রাস্তা এড়িয়ে দোয়েল চত্বর হয়ে নিউমার্কেট নিয়ে যাওয়ার কথা বলে দেন। কিন্তু দোয়েল চত্বরে এসেই তিনি বাস নিয়ে আটকে পড়েন। শহীদ মিনারের দিকে যাওয়ার জন্য ২০ মিনিটেও বেশি অপেক্ষা করতে হয় তাকে। একই অবস্থা আওয়ামী লীগের ২০তম কাউন্সিল স্থলের আশপাশের সবগুলো মোড়সহ রাজধানীর বিভিন্ন রাস্তায়। আজ শনিবার সকাল ১০টায় কাউন্সিল শুরুর কথা থাকলেও ভোর থেকেই বিভিন্ন জেলা থেকে আসা কাউন্সিলর ও ডেলিগেটরা সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আওয়ামী লীগের সম্মেলনস্থলে আসতে শুরু করেন। তবে বিশৃঙ্খলা এড়াতে গণপরিবহনের জন্য বিকল্প পথ নির্দিষ্ট করেও যানজট এড়ানো যায়নি।

শনিবার ছুটির দিন হওয়ার পরও সবগুলো মোড়েই সকাল থেকেই যানজট দেখা গেছে। সাধারণ যাত্রীরা অভিযোগ করেন, সম্মেলনস্থলের আশপাশের রাস্তাগুলোয় গাড়ি স্বাভাবিকভাবে চলাচল করতে পারছে না। তারওপর নেতাকর্মীরা যেভাবে খুশি রাস্তা দিয়ে চলাচল করার কারণেও বিশৃঙ্খলা তৈরি হয়েছে। মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারের ধীরে যান চলাচল করছে। চানখারপুল মোড়ে যানজট তৈরি হয়েছে সকাল থেকেই। বকশীবাজার মোড় সহ আশপাশের সব রাস্তায়ই যানজট। সম্মেলন স্থলে প্রবেশের জন্য কাউন্সিলরদের জন্য ৪টি গেট নির্ধারিত থাকলেও এখন পর্যন্ত তাদের বেশি প্রবেশ করতে দেখা গেছে রমনা কালিমন্দির ও টিএসটি গেট দিয়ে। এ ছাড়া পল্টন থেকে শাহবাগ আসার সব রাস্তা বন্ধ করে দেওয়ায় লোকজন বাধ্য হয়ে পায়ে হেঁটে চলাচল করছেন।

এদিকে সাইন্সল্যাব মোড় থেকে এলিফ্যান্ট রোডের দিকে যান চলাচল শনিবার সকাল ৭টা থেকেই বন্ধ। পথচারীদের তল্লাশি করে যেতে দেওয়া হচ্ছে সে পথে। মিরপুর ১ ও গাবতলী থেকে আসা বাস আসাদগেট হয়ে ফার্মগেট যেতে পারছে না। আবার শুক্রাবাদ থেকে পান্থপথ হয়েও কারওয়ান বাজার বাসে করে যাওয়ার সুযোগ নেই। ফলে কারওয়ান বাজার যেতে হলে আসাদগেট থেকে হেঁটে যেতে হচ্ছে। আওয়ামী লীগের সম্মেলন উপলক্ষে রাজধানীতে যান চলাচল নিয়ন্ত্রণ করবে পুলিশ। এই দুই দিন শাহবাগ হয়ে মৎস্য ভবনের দিকে এবং জাতীয় প্রেসক্লাব হয়ে শাহবাগের দিকে কোনো গাড়ি চলতে দেওয়া হবে না বলে আগেই জানিয়ে দিয়েছে ঢাকা মহানগর পুলিশের ট্রাফিক বিভাগ।

 


মন্তব্য