kalerkantho

সোমবার । ৫ ডিসেম্বর ২০১৬। ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


এশিয়ান হাইওয়ের প্রস্তাব বিএনপি আমলের

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৫ অক্টোবর, ২০১৬ ১৫:২১



এশিয়ান হাইওয়ের প্রস্তাব বিএনপি আমলের

এশিয়ান হাইওয়ে হওয়ার প্রস্তাব বিএনপির সময় ছিল বলে দাবি করেছেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন। আজ শনিবার দুপুরে রাজধানীর সেগুনবাগিচায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি মিলানায়তনে আলোচনা সভায় তিনি এ তথ্য জানান।

চীনের প্রেসিডেন্টের বাংলাদেশ সফর ভূ-আঞ্চলিক রাজনীতির নতুন বার্তা শীর্ষক এ আলোচনা সভার আয়োজন করে জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টি (জাগপা)। সভায় সভাপতিত্ব করেন জাগপা সভাপতি শফিউল আলম প্রধান।

ড. মোশররফ বলেন, এশিয়ান হাইওয়ের কথা আমাদের সরকার থাকাকালে প্রস্তাব ছিল। সেটা বাংলাদেশের ওপর দিয়ে চট্টগ্রাম হয়ে কক্সবাজার থেকে মাত্র ৩৭ কিলোমিটার নতুন রাস্তা করলে মিয়ানমারের হাইওয়ের সঙ্গে যুক্ত করে থাইল্যান্ডের সঙ্গে সুযোগ স্থাপন করে পুরো এশিয়ার সঙ্গে কানেকটিভিটি হয়ে যায়। আমরা কাজে আগ্রসর হয়েছিলাম। আমরা বাংলাদেশ সরকার পুরো রাস্তা করবো বলে ঘোষণা দিয়ে ছিলাম। কিন্তু আমরা সরকার থেকে চলে আসার কারণে সেটা বাস্তবায়ন হয়নি।

তিনি বলেন, আশা করি চীন এইভাবে ভূমিকা রাখবে। বাংলাদেশের সঙ্গে এই কানেকটিভিটির জন্য তার এ প্রস্তাব বাস্তাবায়ন করবেন। তিনি বলেন, আরেকটি রাস্তা আছে, আমাদের (বিএনপি সরকার) সরকারের প্রস্তাব ছিল একটি ডিপ সী পোর্ট করার জন্য। চায়নাও এ ব্যাপারে সমর্থন দিয়েছিল। সেটা হলো সোনাদিয়া ডিপ সী পোর্ট। এটা হলে চায়নাও সুফল পাবে। এর মাধ্যম্যে উভয় দেশের জনগণের স্বার্থ রক্ষা হবে। আশা করি এটা বস্তাবায়ন করে দুই দেশের জনগণের স্বার্থ রক্ষা করবে চীন।
 
চীনের রাষ্ট্রপতি শি চিনপিং এর এই সফর গুরুত্বপূর্ণ এবং তাৎপর্যপূর্ণ উল্লেখ করে মোশাররফ বলেন, চীনা প্রেসিডেন্ট এই বার্তা দিয়ে গেছেন বাংলাদেশের যেকোনো সংকটে তারা জনগণের পাশে আছে। এ সময় তিনি বলেন, আমরা সম্প্রসারণবাদ আধিপ্যবাদের শিকার। ৫৪টি নদীর পানি ন্যায্য হিস্যা পাচ্ছি না। এটা চেয়ে নেওয়ার কথা নয়। অথচ চায়নার নীতি সব সময় আধিপত্যবাদের বিরুদ্ধে, তারা সব সময় শান্তির পক্ষে অবস্থান নেয়। তিনি বলেন, বর্তমান প্রেক্ষাপটে তিনি (চীনা প্রেসিডেন্ট) ভূ-রাজনীতি বিষয়ে যে ইঙ্গিত দিয়েছেন সেটা খুবই অর্থবহ। চীনের রাষ্ট্রপ্রতির ঢাকা সফর অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

 


মন্তব্য