kalerkantho

শনিবার । ৩ ডিসেম্বর ২০১৬। ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ২ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


সম্পর্কের নতুন মাত্রা তৈরি করে ফিরলেন শি চিনপিং

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৫ অক্টোবর, ২০১৬ ১২:১৩



সম্পর্কের নতুন মাত্রা তৈরি করে ফিরলেন শি চিনপিং

ঐতিহাসিক এক সফরের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশ ও চীনের মধ্যে কৌশলগত অংশীদারত্ব ও সহযোগিতার সম্পর্কের এক নতুন দিগন্ত সৃষ্টি করে ফিরে গেলেন চীনা প্রেসিডেন্ট শি চিনপিং। দুই দিনের রাষ্ট্রীয় সফর শেষে আজ শনিবার সকাল ১০টা ১০ মিনিটে নয়া দিল্লির উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করেন তিনি।

তাকে বিদায় জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর আগে সকালে সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধে মহান মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের প্রতি সম্মাননা জানান চিনপিং। সফরের প্রথম দিন ব্যস্ত সময় পার করেন তিনি। এদিন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে বৈঠক করেন তিনি। বৈঠকে দুই দেশের মধ্যে বিদ্যমান সর্বাত্মক অংশীদারত্ব ও সহযোগিতার সম্পর্ককে কৌশলগত অংশীদারত্ব ও সহযোগিতার জায়গায় নিয়ে যেতে ঐক্যমতে পৌঁছে বাংলাদেশ ও চীন।

এ ছাড়া একসঙ্গে ওয়ান-বেল্ট, ওয়ান রোড উদ্যোগ বাস্তবায়নের পাশাপাশি নৌ যোগাযোগ ও সন্ত্রাস দমনের মতো বিষয়গুলোতে প্রাতিষ্ঠানিক সহযোগিতার বিষয়েও একমত হয়েছেন দুই দেশের নেতারা। শুক্রবার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে দুই নেতার উপস্থিতিতে বাংলাদেশ ও চীনের মধ্যে ২৭টি চুক্তি ও সমঝোতা স্মারকে সই হয়। যার ১৫টি সমঝোতা স্মারক এবং ১২টি ঋণ ও রূপরেখা চুক্তি। এ ছাড়া চীনের অর্থায়নে ছয়টি প্রকল্পের ফলক উন্মোচন করেন তারা। এগুলো হলো কর্ণফুলী নদীর বহুমুখী টানেল, খুলনা ও চট্টগ্রামে ৩২০ মেগাওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন দুটি বিদ্যুৎকেন্দ্র, ন্যাশনাল ডেটা সেন্টার, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে কনফুসিয়াস ইনস্টিটিউট এবং শাহজালাল সার কারখানা।

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক ও চুক্তি স্বাক্ষরের পরে হোটেল লা মেরিডিয়ানে জিনপিংয়ের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাত করেন জাতীয় সংসদের স্পিকার শিরিন শারমিন চৌধুরী। তিনি দুদেশের দেশের সংসেদর মধ্যে সম্পর্ক আরো সুসংহত করার প্রস্তাব দেন। এরপরেই চীনের প্রেসিডেন্টের সঙ্গে দেখা করতে যান বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। সন্ধ্যায় বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করেন চীনের প্রেসিডেন্ট জিনপিং।

এর আগে শুক্রবার বেলা ১১টা ৩৮ মিনিটে এয়ার চায়নার একটি বিশেষ ফ্লাইটে ঢাকায় পৌঁছান চীনের প্রেসিডেন্ট। বাংলাদেশের আকাশসীমায় পৌঁছানোর পরই তাকে বহনকারী বিমানটিকে পাহারা দিয়ে নিয়ে আসে বিমানবাহিনীর দুটি জেট বিমান। ফ্লাইট থেকে নামার পরে চিনপিংকে স্বাগত জানান রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। এ সময় তাকে প্রেসিডেন্ট গার্ড অব অনার দেওয়া হয়।

 


মন্তব্য