kalerkantho

রবিবার। ৪ ডিসেম্বর ২০১৬। ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র বাস্তবায়নে ‘সতর্কতা’ অবলম্বনের সুপারিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৯:৪৯



রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র বাস্তবায়নে ‘সতর্কতা’ অবলম্বনের সুপারিশ

সুন্দরবনের কোন প্রতিবেশগত ক্ষতি না করে সতর্কতা অবলম্বনপূর্বক রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র বাস্তবায়নের সুপারিশ করেছে সংসদীয় কমিটি। আজ বৃহস্পতিবার জাতীয় সংসদ ভবনে বিদ্যুৎ-জ্বালানী ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির বৈঠকে এ সুপারিশ করা হয়।

কমিটি সূত্র জানায়, বৈঠকে ‘রামপাল কয়লা ভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ: অর্থনৈতিক ও পরিবেশগত প্রভাব’ বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। কমিটি ১৩২০ মেগাওয়াট মৈত্রী সুপার থারমাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র সুন্দরবনের প্রান্তসীমা থেকে ১৪ কিলোমিটার ইউনেস্কো হেরিটেজ সাইট থেকে ৬৫ কিলোমিটার দুরে অবস্থিত হওয়ায় অর্থনেতিক, সামাজিক এবং কারিগরি ও প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞদের গবেষণা ও মতামতের ভিত্তিতে বাংলাদেশের পরিবেশ অধিদপ্তরের সকল নিয়ম কানুন ও শর্ত মেনে প্রকল্পটির নির্মাণ কাজ বেগবান করার সুপারিশ করে।

কমিটির সভাপতি মো. তাজুল ইসলামের সভাপতিত্বে কমিটির সদস্য বিদ্যুৎ, জ্বালানী ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ, মো. আতিউর রহমান আতিক, আ ফ ম বাহাউদ্দিন (নাছিম) ও বেগম নাসিমা ফেরদৌসী এবং বিশেষ আমন্ত্রণে অধ্যাপক ড. এম শামসুল আলম, অধ্যাপক ড. আনু মুহাম্মদ, অধ্যাপক ড. বদরুল ইমাম, অধ্যাপক ড. এম নেয়ামুল নাসের, ড. কাজী বায়েজিদ কবির ও অ্যাডভোকেট ড. সৈয়দ রিজওয়ানা হাসান উপস্থিত ছিলেন।


মন্তব্য