kalerkantho

26th march banner

জঙ্গি ও জঙ্গি পাহারাদার দুই-ই বর্জন করুন : তথ্যমন্ত্রী

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৭ মার্চ, ২০১৬ ১৬:৪৭



জঙ্গি ও জঙ্গি পাহারাদার দুই-ই বর্জন করুন : তথ্যমন্ত্রী

তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, ''স্বাধীনতার সুফল সকলের কাছে পৌঁছে দিতে জঙ্গি-রাজাকারমুক্ত বৈষম্যহীন ও দলবাজি-দুর্নীতিমুক্ত সুশাসনের বাংলাদেশ গড়তে হবে। '' তবে জামায়াত-যুদ্ধাপরাধী-জঙ্গি এবং জঙ্গি-রাজাকারদের পাহারাদার খালেদা-বিএনপি চক্র এ অর্জনের পথে সবচেয়ে বড় বাধা বলে উল্লেখ করেন তিনি। তিনি আজ রবিবার দুপুরে রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন ও মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা চিকিৎসক পরিষদ আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ কথা বলেন।

বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা চিকিৎসক পরিষদের সভাপতি অধ্যাপক ডা. সিরাজুল হকের সভাপতিত্বে সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কামরুল হাসান। অন্যান্যের মধ্যে পরিষদের কার্যকরী সভাপতি অধ্যাপক ডা. মো. মোয়াজ্জেম হোসেন, মহাসচিব অধ্যাপক ডা. মোল্লা ওবায়েদুল্লাহ বাকী প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

হাসানুল হক ইনু বলেন, ''জঙ্গি ও জঙ্গি পাহারাদার চক্রের হোতারা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে বাদ দিয়ে স্বাধীনতার ইতিহাস লেখার অপচেষ্টা করে। রাজাকারের হাত ধরে স্বাধীনতা দিবস পালন করে তারা। এরা বদলাবে না। সে কারণেই জঙ্গি ও জঙ্গি পাহারাদার যারা আসলে পাকিস্তানী ভূত ও নব্যরাজাকার, তাদের দমন-বর্জন করতে হবে, মাঝামাঝি কোনো পথ নেই। বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকী ও স্বাধীনতা দিবসে এই হোক আমাদের অঙ্গীকার'', বলেন তিনি।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুকে বিশ্ব ইতিহাসের এক অনন্য নেতা বলে উল্লেখ করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু একাত্তরে স্বাধীন বাংলাদেশের অভ্যুদয়ের মাধ্যমে নেহেরু-জিন্নাহর ১৯৪৭ সালের ধর্মভিত্তিক রাষ্ট্র গঠনের ভুল শুধরে দেন। ধর্মাশ্রয়ী রাষ্ট্র গঠনের ভুল শুধরে দিয়ে জাতীয়তাবাদের ভিত্তিতে রাষ্ট্র গঠন করে বঙ্গবন্ধু উপমহাদেশের একজন সফলতম নেতা হিসেবে ইতিহাসে অমর হয়ে রয়েছেন বলেও উল্লেখ করেন মন্ত্রী।


মন্তব্য