kalerkantho


মহান স্বাধীনতা দিবসে স্মৃতিসৌধে জনতার ঢল

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৬ মার্চ, ২০১৬ ১৪:১৯



মহান স্বাধীনতা দিবসে স্মৃতিসৌধে জনতার ঢল

মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসে লাখো মানুষের বিনম্র শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় সিক্ত সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধ। দিবসটি উপলক্ষে জাতীর বীর সন্তানদের প্রতি ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানাতে সর্বস্তরের মানুষের ঢল নেমেছে সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধে।

বেলা বাড়ার সাথে সাথে ফুলে ফুলে ভরে উঠতে শুরু করেছে শহীদ বেদি। সকালে রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী জাতীর বীর সন্তানদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন শেষ করে সৌধ প্রাঙ্গণ ত্যাগ করে চলে যাওয়ার পরপরই সর্বসাধারণের জন্য সৌধের ফটক খুলে দেওয়া হয়। হাতে ফুল, গালে জাতীয় পতাকা, শহীদ মিনার এবং গায়ে লাল সবুজ পোশাক পরে রংবেরঙের ব্যানার-ফেস্টুন নিয়ে ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনা নিয়ে দলে দলে আসতে শুরু করেছে সর্বস্তরের মানুষ।

এর আগে ভোরের আলো উঁকি দেওয়ার আগেই বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মীরা, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক দলের সদস্যসহ নানা বয়সের বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসের বিভিন্ন ব্যানার-ফেস্টুন ও ফুল নিয়ে সৌধ প্রাঙ্গণের বাহিরে অপেক্ষমাণ থাকেন। সর্বসাধারণের প্রবেশের জন্য সৌধের ফটক খুলে দেওয়ার পরপরই তারা তাদের ব্যানার-ফেস্টুন নিয়ে সারিবদ্ধভাবে শহীদ বেদির দিকে এগিয়ে যান এবং সুশৃঙ্খলভাবে শহীদ বেদিতে ফুল দিয়ে জাতীর বীর সন্তানদের প্রতি শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করেন।

এদিকে, দিবসটি উপলক্ষে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়, গণবিশ্ববিদ্যালয়, আশুলিয়া প্রেসক্লাব, সাভার প্রেসক্লাব, বাংলাদেশ আনসার ভিডিপি, বাংলাদেশ লোক প্রশাসন প্রশিক্ষণ কেন্দ্র (বিপিএটিসি), বিভিন্ন বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়, এনজিও প্রতিষ্ঠানসহ নানা সরকারি ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকেও শ্রদ্ধা জানানো হয় বাংলা মায়ের শহীদ সন্তানদের প্রতি।

এ ছাড়া, দিবসটি উপলক্ষে যেকোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে ঢাকা জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে নেওয়া হয়েছে বাড়তি নিরাপত্তাব্যবস্থা। সৌধ প্রাঙ্গণ ও এর আশপাশের এলাকায় বসানো হয়েছে সিসিটিভি ক্যামেরা। পোশাকধারী পুলিশ-র‌্যাব ছাড়াও সাদা পোশাকে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা কড়া নজরদারিতে রেখেছে গোটা সৌধ এলাকা।

এ ছাড়াও সৌধ প্রাঙ্গণের বাইরে পর্যবেক্ষণ টাওয়ার থেকে সব সময় মনিটরিং করা হচ্ছে চারদিক।

 


মন্তব্য