kalerkantho


বিবিসি বাংলার প্রতিবেদন

মাত্র ৩ শতাংশ: ব্যাংকগুলোর আইটি নিরাপত্তার বাজেট

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৩ মার্চ, ২০১৬ ২০:১২



মাত্র ৩ শতাংশ: ব্যাংকগুলোর আইটি নিরাপত্তার বাজেট

বাংলাদেশের ব্যাংকগুলো তাদের কম্পিউটার সিস্টেম গড়ে তোলার জন্য যে অর্থ খরচ করে তার খুব সামান্য অংশই এই আইটি সিস্টেমের নিরাপত্তার জন্য খরচ হয়।

সাইবার নিরাপত্তার জন্য বাংলাদেশের ব্যাংকগুলো এখন তাদের বাজেটের মাত্র তিন-সাড়ে তিন শতাংশ অর্থ খরচ করে - যা হওয়া উচিত ১৫-২০ শতাংশ, বলছিলেন বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ব্যাংক ম্যানেজমেন্টের সহযোগী অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান।

বাংলাদেশের ব্যাংকগুলোর কম্পিউটার সিস্টেম কতটা সুরক্ষিত? নিরাপত্তার জন্য কত অর্থ খরচ করে ব্যাংকগুলো? মার্কিন ফেডারেল ব্যাংকে থাকা বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের একাউন্ট থেকে ১০০ কোটি ডলার হাতিয়ে ঘটনার নেবার পর এ প্রশ্নগুলো অনেকেই তুলছেন।

এ ব্যাপারে বিবিসি বাংলাকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে মাহবুবুর রহমান বলছিলেন, গত ২০ বছরে আইটি খাতে রায় ৩০ হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ করেছে ব্যাংকগুলো।

"কিন্তু এই বিনিয়োগের অন্তত ১৫ শতাংশ খরচ হওয়া উচিত এই সিস্টেমকে নিরাপদ ও সুরক্ষিত রাখার জন্য। কারণ এখন অনলাইন ব্যাংকিং এর যুগ , আন্তর্জাতিক লেনদেন, মোবাইল ব্যাংকিং - সবকিছুতে সাইবার প্রযুক্তি ব্যবহার হচ্ছে। "

মি. রহমান বলেন, এ জন্য ব্যাংকগুলোর যে বাজেট থাকের তার ১০ থেকে ২০ শতাংশই নিরাপত্তার জন্য বরাদ্দ হওয়া উচিত।

"কিন্তু তিন বছর আগেও ব্যাংকগুলোর সাইবার নিরাপত্তার জন্য মাত্র এক শতাংশেরও কম অর্থ খরচ করতো। এখন তা বেড়েছে, কিন্তু তার পরিমাণ এখনো তিন থেকে সাড়ে তিন শতাংশের মতো। "

মি. রহমান বলেন, আইটিতে বিনিয়োগ করতে হলে যে পরিমাণ সচেতনতা, জ্ঞান এবং প্রযুক্তির সহলভ্যতা থাকতে হয় - বাংলাদেশে তার অভাব আছে। আইটি ক্ষেত্রে যে ধরণের যোগ্যতাসম্পন্ন লোক নেয়া দরকার, ব্যাংকগুলোতে তা প্রায়ই থাকে না। তা ছাড়া বাংলাদেশে এ ক্ষেত্রে বিশেষজ্ঞ তৈরি হলে তারা দেশে থাকতে চান না, বলেন তিনি।

ব্যাংকগুলোর কম্পিউটার সিস্টেমের ওপর সাইবার এ্যাটাক রোধ করার জন্য ব্যাংকগুলোর আরো বেশি মনোযোগী হওয়া উচিত, তা নাহলে গ্রাহকদের আস্থার গুরুতর ক্ষতি হবে।


মন্তব্য