'প্রমাণ হয়েছে- টাকা দিয়ে সব কেনা যায়-333568 | জাতীয় | কালের কণ্ঠ | kalerkantho

kalerkantho

শনিবার । ১ অক্টোবর ২০১৬। ১৬ আশ্বিন ১৪২৩ । ২৮ জিলহজ ১৪৩৭


'প্রমাণ হয়েছে- টাকা দিয়ে সব কেনা যায় না'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৮ মার্চ, ২০১৬ ১২:৪২



'প্রমাণ হয়েছে- টাকা দিয়ে সব কেনা যায় না'

যুদ্ধাপরাধীর জামায়াত নেতা মীর কাসেম আলীর আপিলেও ফাঁসির রায় বহাল থাকায় সন্তোষ প্রকাশ করে সেক্টর কমান্ডার্স ফোরামের চেয়ারম্যান কে এম সফিউল্লাহ বলেছেন, প্রমাণ হয়েছে- টাকা দিয়ে সব কেনা যায় না। প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহার নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের আপিল বেঞ্চ আজ মঙ্গলবার এই রায় ঘোষণা করেন। প্রসিকিউশন ও তদন্ত সংস্থার কাজ নিয়ে শুনানিতে প্রধান বিচারপতির অসন্তোষের প্রেক্ষাপটে সরকারের দুই মন্ত্রীর বক্তব্যে এই রায় নিয়ে শুরু হয়েছিল নানা আলোচনা।

রায়ের পর তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সেক্টর কমান্ডার সফিউল্লাহ বলেন, গুড। ন্যায়বিচার হয়েছে। আমরা খুশি। খুব ভালো হয়েছে। অন্যায় করলে যে দণ্ড পেতে হয় তা নিশ্চিত হয়েছে। জামায়াতে ইসলামীর সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী ফোরাম মজলিসে শুরার সদস্য মীর কাসেম দলটির অর্থ জোগানদাতা হিসেবে পরিচিতি। ২০১০ সালে যুদ্ধাপরাধের বিচার শুরুর পর একে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে বিতর্কিত করতে বিভিন্ন প্রয়াস দেখা যায়, যাতে জামায়াতের হয়ে মীর কাসেম অর্থ ঢেলেছেন বলে সরকারের পক্ষ থেকে অভিযোগ আসে।

ইসলামী ব্যাংক ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য মীর কাসেম ইবনে সিনা ট্রাস্টেরও অন্যতম সদস্য। যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে ২০১২ সালে গ্রেপ্তার হওয়ার পর বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের বিভিন্ন পদ থেকে মীর কাসেমের নাম সরানো হলেও এখনও ইসলামী ব্যাংকের লাখ শেয়ারের মালিক তিনি।

সফিউল্লাহ বলেন, কত কথা শোনা গেছে। সে (মীর কাসেম) মনে করত টাকা দিয়ে সব করা যায়। দেশে সৎ মানুষ থাকতে হয়। সবাইকে টাকা দিয়ে কেনা যায় না- এ বিচারের মাধ্যমে সেটা প্রমাণ হয়েছে। মীর কাসেমসহ সব যুদ্ধাপরাধীর দণ্ড দ্রুত কার্যকর করার তাগিদ দেন সেক্টর কমান্ডার্স ফোরামের চেয়ারম্যান।

 

মন্তব্য